আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 20 মিনিট আগে

আগামী একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সব দল ও প্রার্থী সমান সুযোগ পাবে বলে জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নুরুল হুদা। বৃহস্পতিবার একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেন সিইসি। এই উপলক্ষে জাতীর উদ্দেশ্যে এক ভাষণে ওই মন্তব্য করেন তিনি।

k mnurul huda cec bangladesh

সিইসি বলেন, নির্বাচনী প্রচারণায় সব প্রার্থী ও রাজনৈতিক দল সমান সুযোগ পাবে। সবার জন্য অভিন্ন আচরণ ও সমান সুযোগ তৈরির জন্য নির্বাচনে ‘লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড’ নিশ্চিত করা হবে। এই বিষয়গুলো নিয়ে শিগগরিই পরিপত্র জারি করা হবে।

আগামী ২৩ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদের ভোটগ্রহণের তারিখ ঘোষণা করে তিনি বলেন, ভোটার, রাজনৈতিক নেতাকর্মী, প্রার্থী, প্রার্থীর সমর্থক এবং এজেন্টরা যেন বিনা কারণে কোনো রকম হয়রানির শিকার না হন বা মামলা-মোকদ্দমার মুখে না পড়েন, তার নিশ্চয়তা দিতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ওপর কঠোর নির্দেশ থাকবে। দলমত নির্বিশেষে সংখ্যালঘু, ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী, ধর্ম, জাত, বর্ণ ও নারী-পুরুষভেদে সবাই ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারবেন। এবং ভোট শেষে নিজ নিজ বাসস্থানে নিরাপদে অবস্থান করতে পারবেন।

ভাষণে সর্বস্তরের জনগণকে ভোটাধিকার প্রয়োগের আহ্বান জানান সিইসি। প্রতিটি দলকে একে অন্যের প্রতি সহনশীল ও রাজনীতিসুলভ আচরণের অনুরোধও জানান তিনি।

ভাষণে সিইসি আরও জানান, নির্বাচন পরিচালনার জন্য বিভিন্ন পর্যায়ে ৭ লাখ কর্মকর্তা কাজ করবেন। পাশাপাশি নির্বাচনী এলাকাগুলোতে বিপুলসংখ্যক নির্বাহী, বিচারিক ম্যাজিস্ট্রেট ও পুলিশ, বিজিবি, র‌্যাব, কোস্টগার্ড, আনসারসহ বিভিন্ন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ছয় লাখ সদস্য দায়িত্ব পালন করবেন।

Add comment

Security code
Refresh