আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 26 মিনিট আগে

একটা মাছের দাম আর কতোই বা হতে পারে। খুব বেশি হলে এক লাখ, দুই লাখ কিংবা তর্কের খাতিরে না হয় ধরেই নিলাম এক কোটি। কিন্তু তাই বলে একটা মাছের দাম পাঁচ কোটি!

tuna fish

হ্যাঁ, পাঁচ কোটি টাকা দিয়ে একটি টুনা মাছ কিনে রীতিমতো হৈ চৈ ফেলে দিয়েছেন জাপানের কিয়োসি কিমুরা। তিনি অবশ্য প্রতি বছরই এটা করেন। এজন্য তার নামই হয়ে গেছে ‘টুনা মাছের রাজা’।

পাঁচ কোটি টাকা দিয়ে টুনা মাছ কেনা ছাড়াও বিশ্বের সবচেয়ে বড় মাছের বাজার সুকিজির বার্ষিক নিলামও জিতে নিয়েছেন তিনি।

কিয়োসি কিমুরা ৭ কোটি ৪২ লাখ ইয়েন দিয়ে যে টুনা মাছটি কিনেন সেটির ওজন ২১২ কেজি। মার্কিন ডলারে হিসাব করলে এই মাছের মূল্য দাঁড়ায় ছয় লক্ষ ৩৬ হাজার ডলার। আর বাংলাদেশি মুদ্রায় পাঁচ কোটি টাকারও বেশি।

ব্যক্তিগত জীবনে কিয়োসি কিমুরা জাপানের সুপরিচিত সুশি চেইনশপের উদ্যোক্তা। তিনি বলেন, আমি বুঝতে পারছি মাছের দামটা একটু বেশিই হয়ে গেছে। তবে আমি এতে খুবই খুশি। কারণ এটি খুবই উন্নত জাতের ও বিরাট আকৃতির টুনা মাছ।

তিনি বলেন, আমরা আমাদের গ্রাহকদেরকে সবসময়ই সবচেয়ে ভালোটা দেয়ার চেষ্টা করি। ইতোমধ্যেই শত শত টুনাপ্রেমী আমাদের শপের বাইরে এই মাছের অংশ কেনার জন্য লাইন দিয়েছেন।

বৃহৎ এই টুনা মাছটি কাটার জন্য ঐতিহ্যবাহী বিশেষ জাপানি ছুরি ব্যবহার করেন কিমুরা। তিনি ও তার সহকর্মীরা চেইনশপের পাশেই এই বিরাটাকার মাছটিকে কেটে টুকরো টুকরো করেন।

কিয়োসি কিমুরা গত ছয় বছর ধরে বিরাট অঙ্কের অর্থ দিয়ে মাছের বাজারের নিলাম জিতে নেন। এটাকে তিনি সুশি চেইনশপের প্রচারের মাধ্যম হিসেবেও ব্যবহার করেন। আর এভাবেই তিনি সুশি চেইনশপকে একটি ব্র্যান্ড হিসেবে গড়ে তোলেছেন।

Add comment

Security code
Refresh