আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 51 মিনিট আগে

বাজারে বিভিন্ন ব্র্যান্ডের তেল ও সেরাম অনেক খুঁজে পাওয়া যায়। এদের প্রত্যেকটির গায়ে লেখা থাকে ভেষজ, সব প্রাকৃতিক ও আয়ুর্বেদিক। কিন্তু বাস্তবে এর উত্পাদন প্রক্রিয়ার সত্যতা জানা কঠিন। এরচাইতে বরং বাড়িতেই বানাান আয়ুর্বেদিক তেল। সঠিক উপাদানেের ব্যবহার এবং সঠিক পদ্ধতি শিখুন, তাহলে এটি কষ্টসাধ্য হবে না। নিচে দুই ধরনের আয়ুর্বেদিক তেল তৈরীর পদ্ধতি জানানো হল।

herbal oil

আয়ুর্বেদিক আমলার তেল

আমলা প্রাচীন যুগ থেকে আয়ুর্বেদে ব্যাপকভাবে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। এই ফল ভিটামিন সি সমৃদ্ধ। এটির ব্যবহার চুল পড়া রোধসহ চুল কালো করে। চুলের অকালপক্কতা প্রতিরোধ করে। আমলা দিয়ে নারকেল তেলের ব্যবহার মাথার তালু হাইড্র্রেট করতে সাহায্য করে এবং চুলে উজ্জ্বলতা আনে।

আমলা তেল বানাতে প্রয়োজন হবে- আমলা পাউডার ১০০ গ্রাম, বিশুদ্ধ নারকেল তেল ২৫০ গ্রাম, পানি  ৪ লিটার।

  • প্রথমত, এক তৃতীয়াংশ আমলা পাউডার পানিতে মিশিয়ে অল্প আঁচে ফুটতে দিন।
  • ক্রমাগত মিশ্রণটি নাড়তে থাকুন পানি এক লিটার না হওয়া পর্যন্ত।
  • এরপর একটি পাতলা কাপড় দিয়ে মিশ্রণটি ছেঁকে নিন।
  • এখন অবশিষ্ট আমলা পাউডার পানি ব্যবহার করে একটি পেস্ট বানান।
  • একটি বড় পাত্রে ছেঁকে নেয়া পানি, আমলা পেস্ট ও নারকেল তেল ঢালুন।
  • পাত্রটি চুলায় বসিয়ে মিশ্রণটি ফুটতে দিন। পানি কমে তেল বের হলে নামান।

কাঁচের বোতলে তেল সংরক্ষণ করুন। ভাল ফলাফলের জন্য সপ্তাহে দুবার এটি ব্যবহার করুন।

আয়ুর্বেদিক তুলসীর তেল

তুলসী আয়ুর্বেদে একটি ঔষধি হিসেবে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। এটিকে বেশিরভাগ সময় কাশির ঔষধ হিসেবে ব্যবহার করা হয়। যাইহোক, আপনি তুলসীকে ভেষজ চুলের তেল বানাতে ব্যবহার করতে পারেন। এটি মাথার তালুর অনেক সমস্যা দূর করবে। বিশুদ্ধ নারকেল তেল দিয়ে তৈরি হলে, এই তুলসী আয়ুর্বেদিক তেল চুল করে স্বাস্থ্যেজ্জ্বল এবং আপনার মাথার তালুও সুস্থ থাকবে।

এটি বানাতে নিম্নলিখিত উপাদানের প্রয়োজন হবে- তাজা তুলসী পাতা বা তুলসী পাতার গুঁড়া,  বিশুদ্ধ নারকেল তেল, পানি ও মেথি।

  • এক গুচ্ছ তুলসি পাতা বা তুলসী পাতার গুঁড়ো নিন। পাতা নিলে পানি দিয়ে ব্লেন্ড করুন। আর পাতা গুঁড়ো নিলে পানি দিয়ে পেস্ট বানান।
  • এখন একটি বাটিতে ১০০ মিলি নারকেল তেলে পেস্টটি মেশান।
  • কম আঁচে এটি বসান এবং নাড়তে থাকুন।
  • আপনি এতে মেথিও যোগ করতে পারেন।
  • কিছু সময় পরে চুলা বন্ধ করে তেল ঠান্ডা হতে দিন।
  • কাঁচের বোতলে তেলটি ছেঁকে নিন। 

ব্যবহারের আগে তেল হালকা গরম করে আঙ্গুলের ডগার সাহাষ্যে মাথার তালুতে ম্যাসাজ করুন। ২০ মিনিট রেখেএকটি ভালো ভেষজ শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে দুবার এই তেল ব্যবহার করবেন।

আপনি আরও পড়তে পারেন

চুল রাঙাতে প্রাকৃতিক রঙ

সহজে খুশকি দূর করতে ক্যাস্টর অয়েল

ক্ষতিগ্রস্ত চুলের জন্য ২টি প্রাকৃতিক কন্ডিশনার

Add comment

Security code
Refresh