আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 27 মিনিট আগে

বয়স বাড়লেই চোখে ছানি পড়বে এমন কোনো বৈজ্ঞানিক প্রমাণ মেলেনি। বরং যাদের চোখে ছানি পাওয়া যায় এরমধ্যে উল্লেখযোগ্য একটি অংশের বয়স তুলনামূলক অনেক কম। বিশেষজ্ঞরা বলছেন অনিয়ন্ত্রিত জীবন যাপন, বিকিরণ এলাকায় কাজ করা, উচ্চ রক্তচাপ ইত্যাদি কারণে অল্প বয়সেও চোখে ছানি পড়তে পারে।

cataract2

ক্যাটারাক্ট বা চোখের ছানি পড়ার অন্যতম কারণ হচ্ছে চোখের লেন্স ঘোলা হয়ে যাওয়া। যা অধিকাংশ সময় বয়স বাড়ার সাথে হলেও ডায়াবেটিসের মতো আরো কিছু রোগের কারণে অল্প বয়সেই ছানি পড়তে পারে। গর্ভবতী মায়েদের আল্ট্রাসাউন্ডের কারণে গর্ভের শিশুর চোখেও স্থায়ী ছানি পড়তে পারে।

আবার বিকিরণ এলাকায় কাজ করলে বা যেকোন বিকিরণ রশ্মির জন্যও চোখে ছানি পড়ে। সেক্ষেত্রে চোখের ছানির চিকিৎসা হিসেবে অস্ত্রোপচারের জন্য খুব বেশিদিন অপেক্ষা করা ঠিক নয়। তবে ছানির অপারেশনের গুরুত্ব নির্ভর করে রোগী কোন কাজের সাথে যুক্ত। সেক্ষেত্রে খুব ছোট, সুক্ষ ও কম্পিউটারের কাজ জনিত পেশায় নিয়োজিত থাকলে দ্রুত সম্ভব ছানি অপারেশন করাই ভালো বলে মনে করেন চিকিৎসকরা।

কিছুটা বিলম্ব করা গেলেও খুব বেশি দেরি করা উচিত নয়। কেননা এতে করে স্থায়ীভাবে চোখের ক্ষতি হতে পারে। আজকাল অপারেশন ছাড়াই চোখে লেন্স ব্যবহার করে ছানি সমস্যার সমাধান করা সম্ভব হয়। তবে এক্ষেত্রে খরচটা বেশি পড়বে।

Add comment

Security code
Refresh