আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 57 মিনিট আগে

বাসে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ভয় পাওয়াটাই স্বাভাবিক। দুর্ভাগ্যক্রমে এই ধরণের নাশকতায় পড়ে গেলে নিজের জীবন বিপন্ন হয়ে উঠতে পারে। তাই সবসময় বাড়তি সতর্কতা খুবই জরুরী। জেনে নিন কীভাবে নিজেকে রক্ষা করবেন।

অগ্নিকাণ্ড ঘটলে প্রথম ও দরকারী পরামর্শ হচ্ছে কোনোভাবেই আতঙ্কিত হওয়া যাবে না। ঠিক ওই সময়টিতে মাথা ঠাণ্ডা রাখতে পারলে নিজের জীবনসহ সহযাত্রীদের জীবনও বাঁচানো সম্ভব।

বাসে আগুন লেগে গেলে সর্বপ্রথমে বের হওয়ার চেষ্টা করুন। এক্ষেত্রে কোনোভাবেই তাড়াহুড়ো করা যাবে না। তাড়াহুড়োয় জীবন বিপন্ন হয়ে উঠতে পারে। বরং নিজে দায়িত্ব নিয়ে বাসের যাত্রীদের লাইন ধরে বের হতে সাহায্য করুন। আপাত দৃষ্টিতে সময় লাগছে বেশি মনে হলেও এটাই নিরাপদে সবাই বের হওয়ার কার্যকরী উপায়।

আগুন লাগার পরও বাস চালালে আগুন বেড়ে গিয়ে হিতে বিপরীত হতে পারে। তাই সাথে সাথে বাস থামিয়ে দিতে ড্রাইভারকে অনুরোধ করুন। যদি ধোঁয়া হতে থাকে তাহলে সব জানালা খুলে দেয়ার ব্যবস্থা করুন। যতোক্ষণ সম্ভব ধোঁয়ার মধ্যে দম না নেয়ার চেষ্টা করতে হবে।

বাস থেকে নামার জন্য শুধুমাত্র বাসের দরজার উপর নির্ভর না করে সমর্থ ব্যক্তিরা জানালা দিয়ে নামতে চেষ্টা করুন। এতে দরজায় হুড়োহুড়ি কম হবে। জানালা খোলা না গেলে যে কোনো উপায়ে জানালার কাঁচ ভেঙ্গে ফেলুন।

গায়ে আগুন লেগে গেলে বিচলিত না হয়ে মাটিতে শুয়ে পড়ুন। গড়াগড়ি খান। ভুলেও দৌঁড় দেয়া যাবে না। সম্ভব হলে লজ্জা না করে কাপড় খুলে ফেলুন। ভারী কাপড় বা কম্বল দিয়ে চাপাও দিতে পারেন।

শরীরের ত্বক পুড়ে গেলে পোড়া জায়গায় সবার আগে পানি ঢালার ব্যবস্থা করুন। বরফের ব্যবস্থা করতে পারলে আরও ভালো হয়। পোড়া স্থানে ফোসকা পড়ে গেলে জীবাণুমুক্ত সুঁই বা ব্লেড দিয়ে আলতো খোঁচা দিয়ে ভিতরের পানিটুকু বের করে দিন। চামড়া তুলে ফেলবেন না।

তারপর ভেজা কাপড় দিয়ে ক্ষতস্থান পেঁচিয়ে নিয়ে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের কাছে যান।

 

আরও পড়ুন

শীতের সবজি মটরশুঁটি

দই খান প্রতিদিন

গরম পানিতে গোসল কি উপকারী?

Add comment

Security code
Refresh