আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 48 মিনিট আগে

বিশ্বে প্রথমবারের মতো ৫১২ জিবি মেমরি কার্ড বাণিজ্যিকভাবে উৎপাদন শুরু করেছে ইলেক্ট্রনিক পণ্য নির্মাতা দক্ষিণ কোরীয় প্রতিষ্ঠান স্যামসাং। মোবাইল ডিভাইসের জন্য বড় পরিসরে তৈরি করা এই এম্বেডেড ‘ইউনিভার্সাল ফ্ল্যাশ স্টোরেজ’ মেমোরি চিপের ফলে এখন মোবাইলে প্রায় কম্পিউটারের সমান ফাইল রাখা যাবে।

samsung galaxy note 7 in market 1

প্রযুক্তিভিত্তিক একাধিক ওয়েবসাইটে প্রকাশিত তথ্য অনুসারে, ৫১২ জিবির মেমোরি চিপে অতি উচ্চমানের ১০ মিনিট দৈর্ঘ্যের ১৩০ টি ভিডিও ক্লিপ সংরক্ষণ করা যাবে যেখানে ৬৪ গিগাবাইটের একটি চিপে এমন ভিডিও ক্লিপ মাত্র ১৩টি পর্যন্ত সংরক্ষণ করা যায়।

ধারণা করা হচ্ছে, পরবর্তী গ্যালাক্সি ডিভাইসগুলোতে স্যামসাং ৫১২ গিগাবাইট ইন্টার্নাল স্টোরেজ রাখতে পারে। এর আগে গত বছর প্রতিষ্ঠানটি সর্বোচ্চ স্টোরেজ ২৫৬ গিগাবাইট বাজারে এনেছিল।

স্যামসাংয়ের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, নতুন স্টোরেজ চিপটিতে আটটি ৬৪ স্তরের ৫১২জিবি ভি-ন্যান্ড চিপ থাকবে। স্টোরেজ দ্বিগুণ করা হলেও চিপটির আকার ২৫৬জিবির মতোই হবে বলেও জানানো হয়।

স্যামসাং দাবি করে, নতুন এই ৫১২ জিবি চিপ মাইক্রোএসডি কার্ডের চেয়ে আটগুণ দ্রুত গতিতে ডেটা রিড ও রাইট করতে পারবে।

পরবর্তী প্রজন্মের ফোনে নতুন এই চিপ ব্যবহার করা হবে বলে প্রতিষ্ঠানটি জানালেও গ্যালাক্সি এস নাইন বা নোট নাইনে এটি ব্যবহার করা হবে কিনা তা জানা যায়নি।

Add comment

Security code
Refresh