আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 37 মিনিট আগে

দুই বছর আগে ৫১২ জিবি ধারণক্ষমতার মেমোরি কার্ড বাজারে এনে বিশ্বকে চমকে দিয়েছিলো ওয়েস্টার্ন ডিজিটালের ব্র্যান্ড স্যানডিস্ক। দুই বছরের মধ্যে তারা মেমোরি কার্ডের ক্ষমতা দ্বিগুণে উন্নীত করে ফেলেছে। এবার এক টিবি অর্থাৎ ১০২৪ গিগাবাইটের মেমোরি কার্ড নিয়ে এলো তারা। এতো বেশি ধারণক্ষমতা সম্পন্ন এটিই বিশ্বের প্রথম মেমোরি কার্ড।

sandisk introduced worlds first ever 1tb memory card

হাই ডেফিনেশন ফটোগ্রাফি এবং ভিডিওগ্রাফি দিন দিন বেড়ে চলেছে। সঙ্গে বাড়ছে আরো বেশি ধারণক্ষমতা সম্পন্ন ডিভাইসের চাহিদাও। কিন্তু স্মার্টফোনের বা ক্যামেরার ধারণক্ষমতা এই এগিয়ে চলার সঙ্গে তাল মেলাতে পারছিলো না। ফলে পেশাদার ফটোগ্রাফার ও ভিডিওগ্রাফার পড়তে হচ্ছিলো নানা সমস্যায়। একই সঙ্গে সর্বাধুনিক স্মার্টফোন ব্যবহারকারীরাও পড়ছিলেন অস্বস্তিতে।

স্যানডিস্ক মনে করে, এতো সব সীমাবদ্ধতা দূর হয়ে তাদের নতুন মেমোরি কার্ডের মাধ্যমে। ১৬ বছর আগে স্যানডিস্ক বাজারে ছিলো তাদের প্রথম মেমোরি কার্ড। সেই কার্ডের ধারণক্ষমতা ছিলো মাত্র ৬৪ মেগাবাইট। গত প্রায় দেড় যুগে স্যানডিস্ক মেমোরি কার্ডের সক্ষমতা কোথায় এনে দাঁড় করিয়েছে, তা বুঝতে এই তথ্যই যথেষ্ট।

জার্মানিতে চলমান বিশ্ব বাণিজ্য প্রদর্শনীতে স্যানডিস্ক তাদের এই নতুন পণ্যটি প্রদর্শন করেছে। আপাতত মেমোরি কার্ডটি প্রদর্শনের জন্যই রাখা হয়েছে। বাণিজ্যিকভাবে বাজারে ছাড়তে আরো কিছুটা সময় লেগে যাবে বলে জানা গেছে।

নতুন এই মেমোরি কার্ডের দাম কতো হবে, সেটা জানায়নি ওয়েস্টার্ন ডিজিটাল। তাদের ৫১২ জিবির যে মেমোরি কার্ডটি আছে, তার দাম তিনশ ডলারের বেশি। সে অনুপাতে ধারণা করা হচ্ছে, নতুন মেমোরি কার্ডের দাম পাঁচ থেকে ছয়শ ডলার হতে পারে।

আপনি আরো পড়তে পারেন

গরুর গোপনীয়তাও রক্ষা করছে গুগল!

ভিসা পেতে সহায়তা করবে ভিসা থিং

মাত্র ১ মিনিটে যা ঘটে যায় নেট দুনিয়ায়

বিদ্যুৎ তৈরি হবে মাছের আঁশটে থেকে!

ফেসবুকের এ কেমন কাণ্ডজ্ঞানহীনতা!

Add comment

Security code
Refresh