আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 48 মিনিট আগে

কাশ্মিরে চলমান অশান্তির মধ্যেই চীনের হস্তক্ষেপ নিয়ে নতুন করে বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে। ভারতন নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি নিজেই জনসম্মুখে অভিযোগ করেছেন যে, দুর্ভাগ্য হলেও সত্য চীন এখন কাশ্মীরের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে নাক গলাচ্ছে।'

kashmir clash 7 julyভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে দীর্ঘদিন ধরেই চলছে অচলাবস্থা...

কাশ্মির কেন্দ্রিক নানা আন্দোলন-সংগ্রাম আর আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর বিরুদ্ধে চলমান বিক্ষোভের প্রেক্ষিতে কাশ্মির ইস্যুতে মধ্যস্থতা করারও প্রস্তাব দিয়েছে চীন। ভারত চীনের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করলেও বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হচ্ছে আন্তর্জাতিক বিশ্বে। বিশ্লেষকরা বলছেন, চীন যে ইচ্ছে করেই কাশ্মির বিতর্কে নিজেদের জড়াতে চাইছে বিষয়টি স্পষ্ট।

গত সপ্তাহেই প্রথমবারের মতো কাশ্মির ইস্যুতে মধ্যস্থতার প্রস্তাব দেয় চীন। চলতি সপ্তাহের শুরুতে শনিবার ভারতের দিল্লিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের বৈঠকে জম্মু ও কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি চীনের হস্তক্ষেপ চেষ্টার বিষয়টি তুলে ধরেন।

মেহবুবা মুফতি বলেন, 'কাশ্মিরের ইস্যুতে বাইরের দেশও নাক গলাচ্ছে। আমাদের কপাল খারাপই বলবো, চীন এখানে নাক গলাচ্ছে। বৈদেশিক প্রভাবই জম্মু ও কাশ্মিরের পরিবেশ নষ্ট করছে।'

এদিকে দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ও চীন-ভারত সম্পর্ক বিশেষজ্ঞ শ্রীমতি চক্রবর্তীর বলছেন, 'কাশ্মিরের ভেতর দিয়ে চীন-পাকিস্তান ইকোনমিক করিডরে নির্মাণে ভারতের আপত্তিই চীনকে ভাবাচ্ছে। ভারত-চীন, ভুটান-ভারত সীমান্ত ইস্যুতে চীন প্রভাব বিস্তার করছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

ভারতের প্রতিরক্ষা বিশেষজ্ঞ ব্রিগেডিয়ার বি ডি মিশ্রা বলেন, 'ভারতকে বিব্রত করার কোন সুযোগই চীন হেলায় হারাবে না। আর সেই ফল পাকিস্তানের পক্ষে গেলেতো কথাই নেই।'

Add comment

Security code
Refresh


advertisement