আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 51 মিনিট আগে

সিরিয়ার আফরিনে কুর্দি গেরিলাদের বিরুদ্ধে তুর্কি অভিযানে এ পর্যন্ত দেশটির ৩১ জন সেনা নিহত হয়েছে। এছাড়া আহত হয়েছে আরো ১৪২ জন। তুর্কি সেনাবাহিনী এ তথ্য জানিয়েছে।

turky afrin siriya

সোমবার তুরস্কের সামরিক বাহিনীর সেন্ট্রাল কমান্ড এক বিবৃতিতে জানায়, আফরিনে ২০ জানুয়ারি থেকে সামরিক অভিযান শুরুর পর এখন পর্যন্ত ১৭৪ জন তুর্কি সেনা হতাহত হয়েছে।

এর বিপরীতে তুর্কি হামলায় এখন পর্যন্ত নিহত হয়েছে ১ হাজার ৩৬৯ জন কুর্দি গেরিলা। এছাড়া ওয়াইপিজি’র ১৫টি সামরিক ঘাঁটি ও অস্ত্রের গুদাম ধ্বংস হয়েছে।

সন্ত্রাসী ওয়াইপিজি-কে নির্মূলের এই অভিযানের প্রাথমিক ফল হিসেবে আফরিনের ৫১টি কৌশলগত অঞ্চল কুর্দি গেরিলাদের হাত থেকে নিয়ন্ত্রণে নিতে সক্ষম হয়েছে তুর্কি বাহিনী ও তাদের সহযোগী যোদ্ধারা।

flag turkey

এদিকে আফরিনের আকাশসীমা থেকে একটি তুর্কি ড্রোন ভূপাতিত করেছে কুর্দি গেরিলা গোষ্ঠী ওয়াইপিজি।

এক বিবৃতিতে তারা বলেছে, সোমবার সন্ধ্যায় বাইরেক্টার টিবি-২ নামের দূরপাল্লার ড্রোনটি ভূপাতিত করা হয়। মধ্যম মাত্রার উচ্চতায় উঠতে সক্ষম ড্রোনটি গোয়েন্দাগিরি করছিল।

একটি বাইরেক্টার টিবি-২ ড্রোনের গায়ে তুর্কি প্রেসিডেন্ট এরদোয়ান স্বাক্ষর দেয়ার মাত্র দুদিন পর এই খবর আসে।

পিকেকে-এর সাথে সম্পর্কিত বলে সিরীয় কুর্দি গেরিলাদের সন্ত্রাসী মনে করে তুরস্ক। তবে ওই সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর সঙ্গে সম্পর্ক থাকার অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে কুর্দি গেরিলারা।

অন্যদিকে সিরিয়া যুদ্ধে আইএস বিরোধী লড়াইয়ের পর ওয়াইপিজি-কে প্রকাশ্য সমর্থন ও মদদ দিয়ে আসছে যুক্তরাষ্ট্র, এমনই অভিযোগ করছে তুরস্ক। ন্যাটোভুক্ত দুই মিত্র দেশের মধ্যে এ নিয়ে চরম টানাপড়েন দেখা দিয়েছে।

Add comment

Security code
Refresh