advertisement
আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 32 মিনিট আগে

গোলাম মোহাম্মদ (জিএম) কাদেরকে জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান পদ থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে। তবে তিনি বিরোধী দলীয় উপনেতা পদে থাকবেন কি না, সে বিষয়ে দলের পার্লামেন্টালি বোর্ড সিদ্ধান্ত নেবে। এছাড়া জিএম কাদের জাপার প্রেসিডিয়াম সদস্য পদে বহাল থাকছেন। শুক্রবার এক সাংগঠনিক নির্দেশে এ সব জানিয়েছেন দলটির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ।

gm quader at press in banani

বিষয়টি জানিয়ে গণমাধ্যমে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, পার্টির গঠনতন্ত্রের ২০/১/ক ধারা মোতাবেক জিএম কাদেরের ব্যাপারে এ সব সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে এবং তা অবিলম্বে কার্যকর হবে। এ সিদ্ধান্ত স্থায়ী হলে এরশাদের অবর্তমানে জাতীয় পার্টির নেতৃত্বে থাকা তার জন্য কঠিন হয়ে পড়বে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ‘জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হিসেবে আমি এই মর্মে আমার পার্টির সর্বস্তরের নেতা-কর্মী-সমর্থক-শুভানুধ্যায়ী এবং সংশ্লিষ্ট সব মহলের জ্ঞাতার্থে জানাতে চাই, আমি ইতোপূর্বে ঘোষণা দিয়েছিলাম যে, আমার অবর্তমানে পার্টির কো-চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের পার্টি পরিচালনার সার্বিক দায়িত্ব পালন করবেন এবং আমি এটাও আশা প্রকাশ করেছিলাম যে, পার্টির পরবর্তী জাতীয় কাউন্সিল তাকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত করবে। কিন্তু পার্টির বর্তমান সার্বিক অবস্থার বিবেচনায় আমার ইতোপূর্বেকার সেই ঘোষণা প্রত্যাহার করে নিলাম।’

এতে আরো বলা হয়, ‘যেহেতু কাদের পার্টি পরিচালনা করতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছেন, পার্টির সাংগঠনিক কার্যক্রম ঝিমিয়ে পড়েছে এবং তিনি পার্টির মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি করেছেন। পার্টির সিনিয়র নেতারাও তার নেতৃত্বে সংগঠন করতে অপারগতা প্রকাশ করেছেন। এমনতাবস্থায় সংগঠনের স্বার্থে পার্টির সাংগঠনিক দায়িত্ব এবং কো-চেয়াম্যানের পদ থেকে গোলাম মোহাম্মদ কাদেরকে অব্যাহতি দেয়া হলো। তবে তিনি পার্টির প্রেসিডিয়াম পদে বহাল থাকবেন। তিনি সংসদের বিরোধী দলীয় উপনেতার পদে থাকতে পারবেন কি-না তা জাতীয় পার্টির পার্লামেন্টারি পার্টি নির্ধারণ করবে।’

sheikh mujib 2020