advertisement
আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 32 মিনিট আগে

বনানীর এফআর টাওয়ারে আটকা পড়া মানুষদের অনেকেই জ্ঞান হারিয়ে ভবনের ফ্লোরে পড়ে আছেন বলে জানিয়েছেন এক প্রত্যক্ষদর্শী। আগুন লাগার সময়ে তিনি ওই ভবনেই ছিলেন। এরপর ভবনের জানালা দিয়ে বের হয়ে টেলিফোন ও ইন্টারনেটের তার এবং এসি বেয়ে বেয়ে পাশের ভবন দিয়ে বের হয়ে আসেন।

fire crane banani

এই প্রত্যক্ষদর্শী জানান, তিনি ১৩ তলা থেকে ভবনটির ১০ তলা পর্যন্ত দেখেছেন। প্রত্যেক তলাতেই বেশ কিছু মানুষ ধোঁয়ায় অজ্ঞান হয়ে ফ্লোরে পড়ে আছেন। তাদের উদ্ধার করার জন্য এখনও কেউ যায়নি।

এদিকে এফআর টাওয়ারে আটকে থাকা যারাই জানালা দিয়ে বেরোতে পেরেছেন তাদের সবাইকেই ফারার সার্ভিসের ক্রেন উদ্ধার করেছে। তবে ভবনের ভিতরে কেউ আছে কি না সে ব্যাপারে এখনও কেউ নিশ্চিত নন।

সাহায্যের আশায় থাকা সবাইকে নিচে নামিয়ে আনার পরই ভবনের ভেতরে প্রবেশ করতে সক্ষম হয়েছেন ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা। তারা ভবনটির ভেতর থেকে আগুন নিয়ন্ত্রণে চেষ্টা করে যাবেন।

এর আগে আগুন থেকে বাঁচতে ভবনের উপরের কয়েকটি তলা থেকে কয়েকজন লাফিয়ে পড়েছেন। নিচে তাদেরকে নিরাপদভাবে গ্রহণ করার কোনো ব্যবস্থা না থাকলেও ধোঁয়া ও আগুন আতঙ্কে তারা এই কাজটি করেছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টা ৫০ মিনিটের দিকে এই আগুন লাগে। আগুন নিয়ন্ত্রণে ফায়ার সার্ভিসের ২০টি ইউনিট বর্তমানে কাজ করছে বলে জানা গেছে।

sheikh mujib 2020