advertisement
আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 12 মিনিট আগে

বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়াকে সম্ভবত চিকিৎসার নামে ‘সরকার স্লো পয়জনিং করছে’ বলে বুধবার আশঙ্কা প্রকাশ করেছে তার দল। বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘আমাদের ভয় হচ্ছে সরকার তাকে চিকিৎসার নামে অন্য কিছু করছেন কিনা? তাকে স্লো পয়জনিং করা হচ্ছে কিনা? জনমনে প্রশ্নও দেখা দিয়েছে যে তিনি এতো অসুস্থ হলেন কীভাবে?’

Ruhul Kabir Rizvi talking to press

পবিত্র শবে-মিরাজ উপলক্ষে নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বিএনপি আয়োজিত দোয়া মাহফিলে তিনি এসব কথা বলেন। বিএনপি চেয়ারপার্সন গুরুতর অসুস্থ নন বলে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) পরিচালক যে তথ্য দিয়েছেন তার সত্যতা নিয়েও উদ্বেগ প্রকাশ করেন রিজভী।

তিনি বলেন, 'খালেদা জিয়াকে কারাগারে দেখা চিকিৎসকেরা বলেছিলেন যে তিনি অত্যন্ত অসুস্থ। এখন তাকে পিজিতে (বিএসএমএমইউ) আনার পর কোনো পরীক্ষা বা ডায়াগনোসিস ছাড়াই সেখানকার পরিচালক বললেন তিনি খুব একটা অসুস্থ নন।'

বিএনপির এ নেতা আরও বলেন, 'মনে হচ্ছে (প্রধানমন্ত্রী) শেখ হাসিনা ও সরকার পিজি পরিচালককে যে তথ্য দিচ্ছেন তিনি শুধুমাত্র তাই বলছেন। চিকিৎসকরা চাকরি রক্ষার জন্য একজন মানুষকে মৃত্যুর মুখে ঠেলে দিতে শেখ হাসিনার ভাষায় কথা বলছেন।'

তাকে হাসপাতালে ভর্তির ঘণ্টাখানেক পর এক সংবাদ সম্মেলনে বিএসএমএমইউ পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. একে মাহবুবুল হক বলেছিলেন, খালেদা জিয়া কোনো গুরুতর রোগে ভুগছেন না।

রিজভী অভিযোগ করেন যে, তাদের দল বারবার দাবি জানানোর পরও সরকার খালেদা জিয়ার সুচিকিৎসা নিশ্চিত করছে না। খালেদা জিয়া যদি গুরুতর অসুস্থ না হন তাহলে তাকে কেন হুইলচেয়ারে করে হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। বিএনপি চেয়ারপার্সনকে তার পছন্দ অনুযায়ী বিশেষায়িত বেসরকারি হাসপাতালে সুচিকিৎসা নিতে এবং কারাগার থেকে মুক্তি দিতে সরকারের কাছে দাবি জানান রিজভী।

sheikh mujib 2020