advertisement
আপনি দেখছেন

কুড়িগ্রামে আদালত প্রাঙ্গণ থেকে মোটরসাইকেল চুরি করে সিসিটিভি ক্যামেরার মাধ্যমে ধরা খেলেন এক পুলিশ কনস্টেবল। মঙ্গলবার সকালে জেলার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত প্রাঙ্গণে এ ঘটনাটি ঘটে।

police thieft bike

অভিযুক্ত পুলিশ কনস্টেবল তরিকুল ইসলাম কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশের একজন সদস্য এবং ওই দিন চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে দায়িত্বরত ছিলেন। তার বিরুদ্ধে ওই দিনই থানায় মামলা দায়ের করেন মোটরসাইকেলের মালিক চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের প্রোসেস সার্ভার পদের কর্মচারী আল আমিন আহমেদ।

জানা যায়, ওই দিন সকালে আদালত প্রাঙ্গণে অসাবধানতাবশত মোটরসাইকেলের সঙ্গে চাবি রেখে আদালত ভবনের ভেতরে চলে যান আল আমিন আহমেদ। কিছুক্ষণ পর চাবির কথা মনে পড়লে তিনি বাইরে এসে দেখেন তার মোটরসাইকেলটি সেখানে নেই। এরপর অনেকক্ষণ খোঁজাখুঁজি করেও মোটরসাইকেলে সন্ধান না পেয়ে আদলত ভবনে লাগালো সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ পরীক্ষা করেন তিনি।

এ সময় সিসিটিভি ক্যামেরার ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, আদালতে দায়িত্বরত পুলিশ সদস্য তরিকুল ইসলাম তার মোটরসাইকেলটি নিয়ে পালিয়ে যাচ্ছেন। পরে জেলার পুলিশ সুপারকে বিষয়টি অবহিত করলে তিনি ঘটনার সত্যতা পেয়ে ওই কনস্টেবলকে গ্রেপ্তারের নির্দেশ দেন এবং ওইদিনই তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে কুড়িগ্রাম সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মাহফুজার রহমান গণমাধ্যমকে জানান, ওই কনস্টেবলকে বুধবার সকালে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। এছাড়া উদ্ধার করা মোটরসাইকেলটি আলামত হিসেবে থানায় রাখা হয়েছে।

এ বিষয়ে পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মহিবুল ইসলাম খান জানান, তদন্তে সত্যতা পাওয়ায় ওই পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতির আওতায় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।