advertisement
আপনি দেখছেন

নোয়াখালীর একটি কলেজে অনুষ্ঠিত এইচএসসি পরীক্ষায় নকল করতে না দেয়ায় পরীক্ষার্থী কর্তৃক শিক্ষকদের ধাওয়া এবং কলেজ ভবনে ভাংচুর চালানোর অভিযোগ পাওয়া গেছে। তবে শিক্ষকরাই বাড়াবাড়ি করেছেন বলে অভিযোগ শিক্ষার্থীদের।hatiya noakhali

স্থানীয়দের দেওয়া বিবরণে জানা যায়, নোয়াখালীর বিচ্ছিন্ন দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার চরকিং ইউনিয়নে অবস্থিত হাতিয়া ডিগ্রি কলেজে ইংরেজি প্রথম পত্রের পরীক্ষার দিন পরীক্ষা শেষে কয়েকজন পরীক্ষার্থী শিক্ষকদের ধাওয়া করে। এ সময় শিক্ষকরা ভীত হয়ে কলেজের অফিস কক্ষে গিয়ে দরজা আটকে দিলে পরীক্ষার্থীরা কলেজ আঙিনায় থাকা শিক্ষকদের মোটরসাইকেলসহ বেশ কয়েকটি কক্ষের টেবিল ও কাচ ভাঙচুর করে এবং পরে ওই এলাকার প্রধান সড়ক অবরোধের চেষ্টা করে।

তবে কয়েকজন পরীক্ষার্থী বলেছেন, ছাত্ররা নয় বরং পরীক্ষার হলে দায়িত্বরত শিক্ষকরা তাদের সাথে বাড়াবাড়ি করেছেন। শিক্ষরা তাদের সাথে অশালীন আচারণ করা ছাড়াও বাথরুমে যেতে দেন নি। এছাড়া বাথরুমে যেতে দিলেও দরজা খুলে রাখতে বাধ্য করেছেন। এজন্য ছাত্ররা বিক্ষোভ করেছে।

খবর পেয়ে হাতিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আরিছুল হক ওই এলাকায় ছুটে এলে পরিস্থিতি শান্ত হয়। কিন্তু কলেজে ভাঙচুরের ঘটনায় এখন পর্যন্ত কেউ কোনো অভিযোগ করেনি বলে জানিয়েছেন ভারপ্রাপ্ত ওসি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

 

আপনি আরো পড়তে পারেন

সরকারি প্রকল্প: অফিস সাজাতে ব্যয় ৪২ কোটি টাকা!

ইমরান : দৃষ্টি ভিন্ন দিকে নিতেই নাজিমুদ্দিন হত্যাকাণ্ড

ওবায়দুল কাদের: তেলের দাম কমলে ভাড়াও কমবে

sheikh mujib 2020