advertisement
আপনি দেখছেন

রাজধানীর ঢাকাসহ দেশের অভিজাত ১৩টি ক্লাবসহ সারাদেশে জুয়া খেলা অবৈধ ঘোষণা করে দেয়া হাইকোর্টের রায় বহাল রেখেছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। তবে আপিল নিষ্পত্তি না হাওয়া পর্যন্ত আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ক্লাবগুলোতে অভিযান চালাতে পারবে না বলে আদেশ দিয়েছেন আদালত। সেইসঙ্গে টাকা ছাড়া তাস খেলায় বাধা দেয়া যাবে না বলেও আদেশে বলা হয়েছে। 

bangladesh high court 1

ক্লাবগুলোর আবেদনের প্রেক্ষিতে আজ বৃহস্পতিবার সকালে প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হাসানের নেতৃত্বাধীন ৭ সদস্যের আপিল বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আইনজীবীরা বলছেন, এ আদেশের ফলে রাজধানীর ক্লাবগুলোতে এখন থেকে আইনশৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনী প্রবেশ, অভিযান চালানো এবং কোনো সরঞ্জাম জব্দ করাতে পারবে না। 

আদালতে ক্লাবগুলোর পক্ষে শুনানি করেন ব‌্যারিস্টার এম আমির উল ইসলাম ও ব‌্যারিস্টার সুমাইয়া আজিজ। রাষ্ট্র পক্ষে শুনানি করেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

শুনানিকালে অ্যাটর্নি জেনারেলের কাছে আদালত প্রশ্ন রেখে বলেছেন, জুয়া খেলা বন্ধে সরকারের পক্ষ থেকে কেন ব্যবস্থা নেয়া হয় না, কেন আদালতকেই সব করতে হয়?

জুয়ার মামলায় আউনজীবী হওয়ায় ব‌্যারিস্টার আমির উল ইসলামকে উদ্দেশ করে আদালত বলেন, আপনি তো সংবিধান প্রণয়নের সঙ্গে জড়িত ছিলেন। এ মামলায় আপনি সেই সংবিধানের বিপক্ষে দাঁড়িয়েছেন। এটি খুবই দুঃখজনক।

উল্লেখ্য, গত ১০ ফেব্রুয়ারি টাকার বিনিময়ে জুয়া খেলা অবৈধ ঘোষণা করে আদেশ দেন বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি মো. মাহমুদ হাসান তালুকদারের হাইকোর্ট বেঞ্চ। এরপর হাইকোর্টে এ রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করে ক্লাবগুলো।