advertisement
আপনি দেখছেন

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও সন্দেহভাজনদের দ্রুত আলাদা করার অনুরোধ করেছেন ঢাকায় নিযুক্ত চীনের ডেপুটি চিফ অব মিশন হুয়ালং ইয়ান। পাশাপাশি আক্রান্তদের ঘনিষ্ঠদের বিশেষ পর্যবেক্ষণে রাখার অনুরোধও জানিয়েছেন তিনি। আজ রোববার নিজ ফেসবুক পেজে এক প্রতিক্রিয়ায় তিনি এ কথা বলেন।

covid 19 virus

হুয়ালং ইয়ান বলেন, ভাইরাসটির কারণে যারা আক্রান্ত হয়েছেন এবং যারা সন্দেহভাজন হিসেবে আছেন তাদের আলাদা করে না রাখলে বড় সংকটে পড়ার ঝুঁকি রয়েছে। তাই বাংলাদেশ সরকারের প্রতি আমার অনুরোধ, তারা যেন এ বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়। সেইসঙ্গে আক্রান্তদের ঘনিষ্ঠ সংস্পর্শে যারা এসেছে তাদের বিষয়েও ব্যবস্থা নেয়ার অনুরোধ জানানো হয়েছে।

প্রসঙ্গত, করোনাভাইরাস বাংলাদেশেও ছড়িয়েছে। এখন পর্যন্ত তিনজনের শরীরে ভাইরাসটি শনাক্ত হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (আইইডিসিআর) পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা।

আজ রোববার আইইডিসিআর দপ্তরে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে তিনি জানান, আক্রান্তদের মধ্যে দুইজন ইতালি প্রবাসী। তারা সম্প্রতি দেশে ফিরেছেন। আর অন্যজনের শরীরে তাদের কাছ থেকে ভাইরাসটি ছড়িয়েছে। এদের মধ্যে দুইজন পুরুষ এবং একজন নারী।

সেব্রিনা ফ্লোরা বলেন, তিনজন আক্রান্ত হলেও পুরো দেশে করোনা ছড়িয়ে পড়ার মতো কোনো পরিস্থিতি এখনো সৃষ্টি হয়নি। এখনই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করার দরকার নেই।

তবে সতর্কতার জন্য প্রয়োজন ছাড়া কোনো জনসমাবেশে যেতে নিষেধ করে তিনি বলেন, ভাইরাস প্রতিরোধে ইতোমধ্যে সব ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। বিভিন্ন হাসপাতালে আইসোলেশন ইউনিট প্রস্তুত করা হয়েছে।