advertisement
আপনি দেখছেন

ভারতে ফ্লাইট বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স, ইউএস-বাংলা ও নভোএয়ার। আজ বৃহস্পতিবার বিমান সংস্থাগুলোর পক্ষ থেকে বিষয়টি জানানো হয়েছে।

biman bangladesh airlince

এর আগে করোনাভাইরাসের কারণে আগামীকাল শুক্রবার থেকে ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশিদের জন্য ভ্রমণ ভিসা স্থগিত করার ঘোষণা দেয় ভারত। আগামীকাল শুক্রবার ভারতীয় সময় বিকেল সাড়ে ৫টা থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে বলে জানায় নয়াদিল্লি।

ভারতের ওই ঘোষণার পরই দেশটিতে ফ্লাইট বন্ধের ঘোষণা দিলো উল্লিখিত বিমান সংস্থাগুলো।

রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠান বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের উপমহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) তাহেরা খন্দকার গণমাধ্যমকে বলেন, ভারতের নিষেধাজ্ঞার কারণে শুক্রবার সন্ধ্যার পর দেশটিতে বিমানের আর কোনো ফ্লাইট পরিচালনা করা হবে না।

অন্যদিকে, ইউএস-বাংলার মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) কামরুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান, আগামীকাল শুক্রবার থেকে শুধু ভারতীদের নিয়ে কলকাতা ও চেন্নাই রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করবেন তারা। তবে ১৫ মার্চ থেকে চেন্নাই রুটের ফ্লাইট বন্ধ করে দেওয়া হবে। আর কলকাতা রুটের ফ্লাইট বন্ধ করা হবে ১৬ মার্চ।

ভারতের আরোপিত নিষেধাজ্ঞা অনুযায়ী আগামী ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত দেশটিতে তাদের ফ্লাইট পরিচালনা বন্ধ থাকবে বলেও জানান তিনি।

এদিকে, নভোএয়ারের সিনিয়র ম্যানেজার (মার্কেটিং অ্যান্ড সেলস) এ কে এম মাহফুজুল আলম জানিয়েছেন, আগামী ১৪ মার্চ থেকে ঢাকা-কলকাতা রুটে তাদের ফ্লাইট বন্ধ হবে। তবে আগামীকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় একটি ফ্লাইট যাত্রী ছাড়াই কলকাতা যাবে সেখানকার ফিরতি যাত্রীদের আনার জন্য।

উল্লেখ্য, গত বছরের শেষ নাগাদ চীনের উহানে করোনাভাইরাসের উৎপত্তি হলেও তা এখন বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়েছে।

ভারতের স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষবর্ধন লোকসভায় বলেছেন, দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৭৩ জন। এদের মধ্যে ৫৬ জন ভারতীয় নাগরিক এবং ১৭ জন বিদেশি নাগরিক। তাছাড়া প্রাণঘাতী এ ভাইরাসে দেশটিতে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। অন্যদিকে, বাংলাদেশে এ ভাইরাসে এ পর্যন্ত তিনজন আক্রান্ত হলেও দুইজন সুস্থ হয়েছে বলে জানানো হয়েছে।