advertisement
আপনি দেখছেন

রাজধানীর টিএসসি ও ধানমন্ডি এলাকা থেকে ট্রাক বোঝাই করে বেওয়ারিশ কুকুর সরিয়ে নিয়েছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন (ডিএসসিসি)। এই কুকুরগুলোকে ইনজেকশন দিয়ে অজ্ঞান করে ডেমরার মাতুয়াইলে ফেলে আসা হয়েছে বলে জানা গেছে। স্থানান্তরের বিরুদ্ধে বার বার প্রাণী অধিকার নিয়ে কাজ করা সংস্থাগুলোর আহ্বান সত্ত্বেও এ কাজ করেছে ডিএসসিসি।

dog dhaka streetমেয়রের আদেশে কুকুর ফেলে আসা হলো মাতুয়াইলে

এ বিষয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ও অ্যানিমেল ওয়েলফেয়ার ক্লাবের সহ-প্রতিষ্ঠাতা তাওহিদ তানজিম বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ হয়ে যাওয়ার পর গত কয়েক মাস ধরে ক্যাম্পাসের আশপাশের শতাধিক কুকুরকে তিনি নিয়মিত খাবার দিচ্ছেন। মানুষের যেন ক্ষতি করতে না পারে সে জন্য এগুলোকে বন্ধ্যাকরণ ও ভ্যাকসিন দেয়া হয়েছে। তারপরও এই কুকুরগুলোকে সরিয়ে দিয়েছে সিটি কর্পোরেশন।

ডিএসসিসির ভেটেরিনারি অফিসার ডা. শফিকুল ইসলাম বলেন, কুকুরগুলো শহরে সমস্যা সৃষ্টি করছিল এবং তা নিয়ে অনেকের আপত্তি ছিল। তাই এগুলোকে মাতুয়াইলে নিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। তবে টিএসসি নয়, রমনা পার্ক ও ধানমন্ডি লেক থেকে কুকুর সরানো হয়েছে।

এ সময় তাকে মনে করিয়ে দেয়া হয় যে, প্রাণী কল্যাণ আইন-২০১৯ অনুযায়ী বেওয়ারিশ প্রাণীদের স্থানান্তর অবৈধ। তখন তিনি বলেন, এটি স্থানান্তর নয়, বরং সাময়িক স্থানান্তর। কারণ কুকুরগুলো আবার ফিরে আসবে। তাছাড়া এটা মেয়রের আদেশ, ওনার সঙ্গেই এ ব্যাপারে কথা বলুন।

dog dhaka street1মেয়রের আদেশে কুকুর ফেলে আসা হলো মাতুয়াইলে

স্টেলা অ্যানিমেল ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান নোনা আহমেদ বলেন, গত চার বছর ধরে ধানমন্ডি লেকের কুকুরগুলোকে তিনি খাওয়াচ্ছেন। এগুলো খুবই বন্ধুসুলভ এবং সব কুকুরকেই বন্ধ্যাকরণ ও টিকা দেয়া হয়েছে। ওরা অসুস্থ হলে আমি সেবা দিয়েছি এবং এটাও জানি যে, তাদের সম্পর্কে কোনো অভিযোগ নেই। কারণ প্রতিদিনই লেকে গিয়ে ওদের খাওয়াই।

ডিএসসিসির জনসংযোগ কর্মকর্তা আবু নাসের বলেন, জনগণের অভিযোগের ভিত্তিতে এবং মেয়রের ইচ্ছায় এ কাজ করা হয়েছে। তবে কোনো সরকারি আদেশ সম্পর্কে তিনি কিছু জানেন না বলে জানান।

sheikh mujib 2020