advertisement
আপনি পড়ছেন

রাজধানীর গুলশানের ৭৯ নম্বর সড়কের হলি আর্টিজান বেকারিতে সন্ত্রাসীদের সাথে গোলাগুলিতে একজন পুলিশ কর্মকর্তা নিহত হওয়া ছাড়াও কমপক্ষে ৫০ জন পুলিশ আহত হয়েছে বলে জানা গেছে।

shoot by pistol

দুর্বৃত্তদের গুলি ও বোমায় ৫০ জন পুলিশকে আহত অবস্থায় ইউনাইটেড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানিয়েছে গুলশান বিভাগের অতিরিক্ত উপকমিশনার (এডিসি) আবদুল আহাদের দেহরক্ষী মফিজুল ইসলাম।

তিনি জানান, এডিসি আহাদ, গুলশান থানার ওসি সিরাজুল ইসলাম, উপপরিদর্শক (এসআই) রফিক, এসআই জিয়া, ভাটারা থানার পরিদর্শক ইয়াছিনসহ অন্তত ৫০ জন পুলিশ আহত হয়েছে। তাদের প্রায় সবাইকেই গুলশানের ইউনাইটেড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এদিকে সাংবাদিকরা জানাচ্ছেন, পুলিশ পুরো ইউনাইটেড হাসপাতাল করে রেখেছে। কাউকে ভেতরে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না।

এর আগে সন্ত্রাসীদের সাথে গোলাগুলিতে বনানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সালাহউদ্দিন নিহত হন। ওসি সালাহ উদ্দিনের মরদেহ গুলশানের ইউনাইটেড হাসপাতালের জরুরি বিভাগে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন তাঁর ব্যক্তিগত গাড়ি চালক মো. মোস্তফা। ওসি সালাহ উদ্দিনের গলায় গুলি ও বোমার স্প্লিন্টার বিদ্ধ হয়েছিলো বলে জানা গেছে।

হলি আর্টিজান বেকারিতে অতত ২০ জন বিদেশিকে জিম্মি করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌছালে সন্ত্রাসী-পুলিশ গুলি বিনিময়ের ঘটনাও ঘটে।

ইতোমধ্যে ওই এলাকা থেকে লাইভ টিভি সম্প্রচার করতে নিষেধ করে অনুরোধ করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ। এখন পর্যন্ত ঘটনাস্থলে থেমে থেমে সন্ত্রাসী-পুলিশ গুলি বিনিময় চলছে বলে জানা গেছে।

রাত ১১টার দিকেও বেকারি থেকে গুলির শব্দ পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছে স্থানীয়রা। পুলিশ ওই এলাকা ঘিরে রেখেছে।

আপনি আরও পড়তে পারেন

র‍্যাব মহাপরিচালক: সন্ত্রাসীদের সাথে কথা বলতে চাই

গুলশানে সন্ত্রাসীদের গুলিতে ওসি সালাহউদ্দিন নিহত

গুলশান থেকে লাইভ সম্প্রচার না করার অনুরোধ

গুলশানে বিদেশি জিম্মি, সন্ত্রাসী-পুলিশ গুলি বিনিময়

উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে ছাত্রলীগের কর্মসুচি স্থগিত