advertisement
আপনি দেখছেন

চলতি ২০২১ সালের মধ্যেই দেশে হাইড্রোজেনচালিত কার আনা হবে বলে জানিয়েছেন বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো. আনোয়ার হোসেন। সোমবার রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ (আইইবি) মিলনায়তনে আয়োজিত এক কর্মশালায় তিনি এ কথা বলেন।

hydrogen car bangladesh import usa homeচলতি বছরই দেশে আসবে হাইড্রোজেনচালিত কার

টেকসই ও নবায়নযোগ্য কর্তৃপক্ষ (স্রেডা) আয়োজিত প্রোসপেক্ট অ্যান্ড চ্যালেঞ্জেস অব হাইড্রোজেন ফুয়েল ইন বাংলাদেশ শীর্ষক কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্র থেকে এই কার বাংলাদেশে আনা হবে। এ ছাড়া এ ব্যাপারে জনসচেতনতা বৃদ্ধি এবং প্রদর্শনের জন্য প্রকল্পে হাইড্রোজেন রি-ফুয়েলিং স্টেশন ও হাইড্রোজেন ফুয়েলসেল কার সংযোজিত হবে।

পর্যায়ক্রমে এর প্রসার সারা দেশে ছড়িয়ে দেওয়া হবে জানিয়ে আনোয়ার হোসেন, প্রযুক্তিতে এগিয়ে যাচ্ছে বিশ্ব, সুতরাং আমাদের পিছিয়ে থাকার সুযোগ নেই। গ্যাস বা কয়লা একদিন ফুরিয়ে যাবে। তাই বিকল্প চিন্তা-ভাবনা করতে হবে আমাদের।

তিনি বলেন, হাইড্রোজেন জ্বালানিতে অনেক এগিয়ে গেছে দক্ষিণ কোরয়িা ও জার্মানি। সারা পৃথিবী এখন এটা নিয়ে কাজ করছে। কারণ ফসিল ফুয়েল অর্থাৎ কয়লা, পেট্রোল, ডিজেল যত বেশি পোড়ানো হয়, ততই বাড়ে কার্বন।

hydrogen car bangladesh import usaচলতি বছরই দেশে আসবে হাইড্রোজেনচালিত কার

কর্মশালায় সভাপতিত্ব করবেন স্রেডার চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলাউদ্দিন। এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিদ্যুৎ বিভাগের সচিব হাবিবুর রহমান এবং বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষণা পরিষদের (বিসিএসআইআর) চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. আফতাব আলী শেখ।

হাইড্রোজেন এনার্জি গবেষণাগার স্থাপন প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক ড. মো. আবদুস সালাম কর্মশালায় মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।

sheikh mujib 2020