advertisement
আপনি পড়ছেন

শান্তির ধর্ম ইসলামকে হেয় প্রতিপন্ন করতেই গুলশানে ও শোলাকিয়ায় সন্ত্রাসী হামলা চালানো হয়েছিলো বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, ইসলাম ধর্মকে অবমাননা করে এমন কর্মকাণ্ড বরদাশত করা হবে না।

priminister shekh hasina

বুধবার বিকেলে চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী ও নানা শ্রেণি-পেশার মানুষের সঙ্গে একটি ভিডিও কনফারেন্সে প্রধানমন্ত্রী এ মন্তব্য করেন।

কনফারেন্সে প্রধানমন্ত্রী বলেন, শান্তির ধর্ম ইসলামকে হেয় প্রতিপন্ন এবং বিশ্ব দরবারে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি নষ্ট করতেই সন্ত্রাসী হামলা চালানো হয়। এই হামলা আমাদের দেশের জন্য লজ্জাজনক।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, যারা ধর্মের নামে এসব করছে, তাদের কোনো ধর্ম নেই। তারা তো মসজিদে নববীতেও বোমা হামলা করেছে। তারা জান্নাত তো দূরের কথা জাহান্নামেও জায়গা পাবে না।

শোলাকিয়ায় হামলার কথা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ওই হামলায় দুই পুলিশ সদস্য মারা গেছেন। গুলশান হামলাতেও দুই পুলিশ সদস্যসহ বিশজন মারা গেছেন। এই ঘটনাগুলো বাংলাদেশের জন্য অত্যন্ত লজ্জাজনক।

শেখ হাসিনা বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার বাংলাদেশে জঙ্গিবাদের কোনো স্থান দেবে না। তিনি বলেন, এখন মানুষের জীবন যাত্রার মান উন্নত হয়েছে। যখন মানুষের কল্যাণ হচ্ছে তখন এসব কর্মকাণ্ড ঘটিয়ে বিশ্বের সামনে বাংলাদেশকে হেয় প্রতিপন্ন করা হচ্ছে। ইসলাম ধর্মকে হেয় প্রতিপন্ন করা হচ্ছে। এটা হতে দেওয়া হবে না।

সন্তানদের বিষয়ে অভিভাবকদের সচেতন থাকার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, জেলা, উপজেলা পর্যায়ে জঙ্গিবাদবিরোধী কমিটির কার্যক্রম এগিয়ে আনতে হবে। আসুন সকলে মিলে বাংলাদেশকে উন্নত ও সমৃদ্ধশালী দেশ হিসেবে গড়ে তুলি।

আপনি আরও পড়তে পারেন

শনিবার ১৬ জুলাই সরকারি অফিস খোলা

হানিফ: একটি দেশ সৈন্য পাঠানোর প্রস্তাব করেছিলো

পররাষ্ট্রমন্ত্রী: জঙ্গি হামলায় দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ হয়নি

বাংলাদেশ থেকে পোশাক কেনা অব্যাহত রাখবে 'অ্যালায়েন্স'

যুদ্ধাপরাধীদের নামে বরাদ্দ রাজউক প্লট বাতিল