advertisement
আপনি দেখছেন

রাত শেষে সকাল হওয়ার আগেই বাদুড়ের দল ঘরে ফিরে। এটি আমাদের খুব চেনা গ্রামের দৃশ্য। বড় বড় সব গাছ দখল করে বাদুড়েরা ঝুলে থাকে। এমন গাছ প্রায়ই দেখা যায়। কিন্তু পুরো শহর বাদুড়ের দল দখল করে নেয়ায় জরুরি অবস্থা ঘোষণা করা হয়েছে এমনটি শুনেছেন কখনো?

bats attack in australia

সম্প্রতি এমন ঘটনা ঘটে অস্ট্রেলিয়ার নিউ সাউথ ওয়েলসের বাটেমানস বে শহরে। শহরের প্রায় সব বাড়ির ছাদে, সব গাছে প্রায় এক লাখের মতো বাদুড় জেঁকে বসেছে। ফ্লাইং ফক্স টাস্কফোর্সের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, শহরের বেশির ভাগ মানুষই নিরাপত্তাহীন ও বন্দি অবস্থায় দিন কাটাচ্ছেন। এই পরিস্থিতিতে নিউ সাউথ ওয়েলসের পরিবেশমন্ত্রী মার্ক স্পিকম্যান শহরে জরুরি অবস্থা জারি করতে বাধ্য হন।

ধূসর রঙের ‘গ্রে হেডেড ফ্লাইং ফক্স’ নামের এই বাদুড়ের ওজন এক কেজি এবং এটি সাধারণত ৯ থেকে ১১ ইঞ্চি লম্বা হয়। এই গ্রে হেডেড ফ্লাইং ফক্স জাতের বাদুড় বিপন্ন প্রজাতির প্রাণীর তালিকাভুক্ত হওয়ায় প্রশাসনের লোকেরা এদের শিকার করতে পারবে না।

প্রশাসন ধোঁয়া ও শব্দের মাধ্যমে বাদুড়গুলোকে শহরছাড়া করার চেষ্টা করে। শস্যক্ষেত নষ্ট করে বাদুড় তাড়ানোর কথাও চিন্তা করতে হয় তাদের। অনেক গাছ কেটে ফেলেও চেষ্টা করা হয়।এ ব্যাপারে পশুকল্যাণ সংস্থাগুলো আপত্তি জানালেও স্থানীয়রা তা মানেননি। বিরক্তির এই পরিস্থিতি থেকে বাঁচতে ১.৮ মিলিয়ন ডলার খরচ করতে হয়ে নিউ সাউথ ওয়েলসকে!

আপনি আরও পড়তে পারেন

গরমে অতিষ্ঠ হয়ে সূর্যের বিরুদ্ধে মামলা!

এগারো রুপিতে মিলছে পাপ মুক্তির সনদ!

সিংহের খাচায় ঝাঁপ, অতঃপর যুবকের মৃত্যু