advertisement
আপনি দেখছেন

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে দ্রুত হারে ছড়াচ্ছে মহামারি করোনার সংক্রমণ। এর ভয়ংকর থাবা থেকে বাঁচতে বিশ্বের গবেষকরা দিনরাত কাজ করছেন একটি প্রতিষেধক আনার জন্য। কিন্তু এখন পর্যন্ত সে রকম কোনো সুখবর মেলেনি। তবে ইতোমধ্যে গুরুতর করোনারোগীদের জন্য বিশ্বের নানা দেশে বিদ্যমান নানা ওষুধ ব্যবহার করা হচ্ছে সহায়ক চিকিৎসা হিসেবে। এর মধ্যে শীর্ষে রয়েছে গিলিয়াড সায়েন্সেসের রেমডেসিভির ওষুধটি। এ ছাড়া হাইড্রোক্সিক্লোরোকুইন, আইভারমেকটিন, ফ্যাভিপিরাভির, অ্যাভিগান, ডেক্সামেথাসন ও অন্যান্য ওষুধ ব্যবহার করা হচ্ছে।

psoriasis approve indiaকরোনার চিকিৎসায় চর্মরোগের ওষুধের অনুমোদন দিলো ভারত

অন্যান্য দেশের মতো ভারতেও দ্রুতহারে বাড়ছে সংক্রমণ। মাত্র চারদিনে দেশটিতে কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়েছেন এক লাখ মানুষ। সেইসঙ্গে বাড়ছে মৃত্যুও। মহামারি ঠেকাতে ভারতেও চলছে গবেষণা। এমনই পরিস্থিতিতে চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে অতি সঙ্কটজনক করোনারোগীদের ক্ষেত্রে চর্মরোগ সোরিয়াসিসের (Psoriasis Injection) চিকিৎসায় ব্যবহৃত ইটোলিজুমাব (Itolizumab) ব্যবহারের অনুমতি দিয়েছে ভারতের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

ভারতীয় গণমাধ্যমে বলা হয়েছে, করোনার চিকিৎসায় কিছু ওষুধের পরীক্ষামূলক ব্যবহার করা যায় কি না তা নিয়ে পরীক্ষা-নিরীক্ষা চালাচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকারের ওষুধ নিয়ন্ত্রক সংস্থা ডিসিজিএ (DCGA)। এরই অংশ হিসেবে পালমনোলোজিস্ট, ফার্মাকোলজিস্ট এবং চিকিৎসা বিশেষজ্ঞদের সমন্বয়ে গঠিত বিশেষজ্ঞ কমিটি বলছে, সাইটোকিন রিলিজ সিন্ড্রোমের চিকিৎসার জন্য ইটোলিজুমাব ব্যবহারে সন্তোজনক ফল পাওয়া গেছে।

psoriasis approve india innerকরোনার চিকিৎসায় চর্মরোগের ওষুধের অনুমোদন দিলো ভারত

খবরে বলা হয়েছে, কোভিড-১৯ রোগীর ওপর ওষুধটির পরীক্ষামূলক ব্যবহার করা হয়েছিল। এতে সাফল্য পাওয়ার পরই এই অনুমোদন দেওয়া হলো ডিসিজিএ’র পক্ষ থেকে। গতকাল শুক্রবার ভারতের ড্রাগস কন্ট্রোলার জেনারেল ডা. ভিজি সোমানি এ অনুমোদন দেন।

ড্রাগ কন্ট্রোলার জেনারেল অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, তীব্র শ্বাসকষ্টে ভোগা করোনারোগীদের মধ্যে যাদের অবস্থা গুরুতর তাদের চিকিৎসায় জরুরি ক্ষেত্রে এই ওষুধের পরিমিত ব্যবহার করা যেতে পারে। তবে এক্ষেত্রে চিকিৎসকদের অনুমতি ছাড়া এই ওষুধ ব্যবহার করা যাবে না।

sheikh mujib 2020