advertisement
আপনি দেখছেন

পাকিস্তানের ২১ বছর বয়সী তরুণ ক্রিকেটার আজম খানকে অনেকে আফগানিস্তানের বিধ্বংসী উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যঅন মোহাম্মদ শাহজাদের সঙ্গে তুলনা করেন। দুজনেই বিধ্বংসী ব্যাটসম্যান হিসেবে পরিচিত তো বটেই, যথেষ্ট শারীরিক মিলও আছে। দুজনেই প্রচুর ফ্যাটি, উচ্চতায় ছোট। নাদুস-নুদুস আজম কাল ব্যাট হাতে ঝড় তুললেন পাকিস্তান সুপার লিগের (পিএসএল) উদ্বোধনী ম্যাচে।

azam khan smacks a pull shot

৩৩ বলে ৫ চার ৩ ছয়ে ৫৯ রানের বিধ্বংসী এক ইনিংস খেলে দলকে তিন উইকেটে জিতিয়েছেন তরুণ ক্রিকেটার। পিএসএলের উদ্বোধনী ম্যাচে কাল মুখোমুখি হয়েছিল ইসলামাবাদ ইউনাইটেড ও কোয়েটা গ্ল্যাডিয়েটরস। টস হেরে প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমে বড় সংগ্রহই গড়ে ইসলামাবাদ।

ডেভিড মালানের ৪০ বলে ৬৪ রানের ইনিংসে ভর করে ৫ বল আগে ১৬৮ রানে গুটিয়ে যায় ইসলামাবাদ। ১৩ বলে ২৩ রান করা লুক রঞ্চি দলটির দ্বিতীয় সর্বোচ্চ সংগ্রাহক।

জবাব দিতে নেমে শুরুটা মোটেও ভালো হয়নি কোয়েটার। ইনিংসের দ্বিতীয় বলেই ওপেনার জেসন রয়কে হারায় দলটি। অপর ওপেনার শেন ওয়াটসন (১৫) ও তিনে নামা আহমেদ শেহজাদ (৭) যখন ফিরলেন কোয়েটার স্কোর তখন ২৬/৩। আজম খান ক্রিজে নামেন তারপরই।

পাল্টা আক্রমণ করে দলকে চাপমুক্ত করতে চেয়েছেন। পেরেছেনও, ৩৩ বলে ৫ চার ৩ ছয়ে ৫৯ রান করে দলের জয়ের সমীকরণ সহজ করেছেন। বেন কাটিং ও সোহেল খান বাকি রাস্তাটা পারি দিয়েছেন দারুণভাবে।

কাটিং ১২ বলে ২২ রান করে অপরাজিত ছিলেন শেষ পর্যন্ত। সোহেল ৯ বলে করেন ১৪। ১৮.৩ ওভারে সাত উইকেট হারিয়ে জয়ের জন্য ১৭১ রান তুলে ফেলে কোয়েটা।