advertisement
আপনি দেখছেন

সরকারের অনুমতি, খেলোয়াড়দের সম্মতি, করোনা টেস্ট, সবমিলিয়ে ইংল্যান্ড যাওয়ার আগে কম ঝামেলা পোহাতে হয়নি পাকিস্তান দলকে। সেখানে গিয়েও প্রথম ম্যাচের আগে বন্দী থাকতে হয়েছে এক মাসেরও বেশি সময়। সবুরে নাকি মেওয়া ফলে। কিন্তু এর বিপরীত হয়েছে সফরকারীদের জন্য। কারণ প্রথম ম্যাচেই তারা হেরে গেছে স্বাগতিকদের কাছে।

babar azam with england tour 2020

ম্যানচেস্টার টেস্টের হার হয়তো একটু বেশিই পোড়াবে আজহার আলীর দলকে। কারণ শান মাসুদ এবং বাবর আজমের ব্যাটে চড়ে প্রথম ইনিংসেই লিড নেয় তারা। তবে দ্বিতীয় ইনিংসের ছন্নছাড়া ব্যাটিং ম্লান করে দেয় সবকিছু। তবুও সুযোগ আসে ম্যাচ জয়ের। তাতে অবশ্য পানি ঢেলে দেন জস বাটলার এবং ক্রিস ওকস। ষষ্ঠ উইকেট এ দুই জনের বড় জুটিতে নাটকীয়তার ম্যাচে ৩ উইকেটের জয়ে শেষ হাসি হাসে জো রুটের শিষ্যরা।

সিরিজে ফেরার লক্ষ্য নিয়ে আজ দ্বিতীয় টেস্টে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মাঠে নামবে পাকিস্তান। সাউদাম্পটনের রোজ বেলে ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় বিকেল ৪টায়।

প্রথম ম্যাচ হেরে যাওয়ায় সফরকারীদের প্রাণপণ চেষ্টা থাকবে এই ম্যাচ জিতে সিরিজে সমতা আনার। তবে ছেড়ে কথা বলবেনা ইংলিশরাও। তারাও মুখিয়ে আছে এই ম্যাচেই সিরিজ নিশ্চিত করার।

প্রথম টেস্টের পর সফরকারীদের কোচ মিসবাহ জানান, হতাশা ভুলে সিরিজে ফিরতে আত্মপ্রত্যয়ী তার দল। সাথে পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক ইনজামাম উল হক বলেন, ইংল্যান্ডের চেয়ে পাকিস্তানই ভালো দল। তাই ওল্ড ট্রাফোর্ডে হেরে গেলেও সিরিজ জিতবে আজহার আলীরাই। কম যাননি জোফরা আর্চারও। এই ইংলিশ পেসার আগাম জানিয়ে রেখেছেন তারা বাকি দুই ম্যাচ জিতে হোয়াইটওয়াশ করবেন অতিথিদের।

এই ম্যাচকে সামনে রেখে পরিবর্তন আসবে দুই দলেই। বাবার অসুস্থ্যতার কারণে ছুটি নিয়ে নিউজিল্যান্ডে চলে গেছেন বেন স্টোকস। তাই স্বাগতিকরা পাচ্ছে না তাদের নিয়মিত অলরাউন্ডারকে। অপরদিকে একাদশে বাড়তি ব্যাটসম্যান খেলানোর কারণে কপাল পুড়তে পারে পাক স্পিনার সাদাব খানের। তার জায়গায় আসতে পারেন ১১ বছর পর দলে ডাক পাওয়া ফাওয়াদ আলম।

sheikh mujib 2020