advertisement
আপনি পড়ছেন

লংগার ভার্সনের পর বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের, বিসিএল, ওয়ানডে টুর্নামেন্টের ফাইনালেও উঠেছে বিসিবি দক্ষিণাঞ্চল ও ওয়ালটন মধ্যাঞ্চল। লংগার ভার্সন ফাইনালে জিতেছিল মধ্যাঞ্চল। ওয়ানডে টুর্নামেন্টের ফাইনাল আগামী ১৫ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হবে। সিলেটে মধ্যাঞ্চল-দক্ষিণাঞ্চলের ফাইনালে জমাট লড়াই আশা করা হচ্ছে।

independence cupইন্ডিপেনডেন্স কাপ, ফাইল ছবি

লিগ পর্বে তিনটি করে ম্যাচ খেলেছে চারটি দল। মধ্যাঞ্চল ও দক্ষিণাঞ্চল সর্বোচ্চ ৪ পয়েন্ট করে পেয়েছে দুটি করে ম্যাচ জিতে। ইসলামী ব্যাংক পূর্বাঞ্চল ও বিসিবি উত্তরাঞ্চল একটি করে ম্যাচ জিতেছে। ২ পয়েন্ট করে পাওয়া দুই দলই ফাইনালের আগে বাদ পড়লো।

বৃহস্পতিবার শেষ দুই ম্যাচে জিতেছে দক্ষিণাঞ্চল ও পূর্বাঞ্চল। সিলেট আন্তর্জাজিত ক্রিকেট স্টেডিয়ামে মধ্যাঞ্চলকে ৫ উইকেটে হারিয়েছে দক্ষিণাঞ্চল। কার্যত ফাইনালের মহড়াই হয়ে গেল এই ম্যাচে। মধ্যাঞ্চল টানা দুটি জয়ের পর হেরে গেল। সিলেট স্টেডিয়াম একাডেমি মাঠে পূর্বাঞ্চল ৪ উইকেটে পরাজিত করেছে উত্তরাঞ্চলকে।

independence cup 4মধ্যাঞ্চল-দক্ষিণাঞ্চল লড়াই

দক্ষিণাঞ্চলের বিপক্ষে আগে ব্যাট করে মধ্যাঞ্চল ৮ উইকেটে ২২০ রান তুলেছিল। আব্দুল মজিদ ৪৬, তাইবুর রহমান ২৩, মোসাদ্দেক ৪৪, আল-আমিন জুনিয়র ২৫ ও শেষ দিকে আবু হায়দার রনি ২৭ বলে ঝড়ো ব্যাটিংয়ে অপরাজিত ৫৪ রান (৬ চার, ৪ ছয়) করেন। মুস্তাফিজ ৪টি, মেহেদী হাসান ৩টি উইকেট পান। জবাবে ৪৮.৪ ওভারে ৫ উইকেটে ২২৫ রান তুলে জয় পায় দক্ষিণাঞ্চল। তৌহিদ হৃদয় অপরাজিত ৬৫, পিনাক ঘোষ ৫৪, বিজয় ২৪, জাকির হাসান ৪০, নাহিদুল ২২ রান করেন। তৌহিদ হৃদয় ম্যাচ সেরা হয়েছেন।

মাহমুদউল্লাহ-মার্শাল আইয়ুবের হাফ সেঞ্চুরির পরও উত্তরাঞ্চল ৪৯.৫ ওভারে ২১৬ রানে অলআউট হয়। মাহমুদউল্লাহ ৬৬, মার্শাল ৫৪, আমিনুল বিপ্লব অপরাজিত ২০, শামীম ১৯ রান করেন। নাঈম হাসান ৩টি, তানভির ইসলাম ২টি উইকেট পান। পরে ইমরুল কায়েসের হাফ সেঞ্চুরিতে ৩৭.৫ ওভারে ৬ উইকেটে ২১৭ করে জয় তুলে নেয় পূর্বাঞ্চল। অধিনায়ক ইমরুল ৭১, তামিম ৩৫, আফিফ ২৬, দিপু ২৬, আলাউদ্দিন বাবু অপরাজিত ১৭, সোহরাওয়ার্দী শুভ অপরাজিত ১৫ রান করেন। মাহমুদউল্লাহ ৩টি উইকেট পান। ইমরুল ম্যাচ সেরার পুরস্কার পেয়েছেন।