advertisement
আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 10 মিনিট আগে

গৌরবময় অনিশ্চয়তার খেলা ফুটবল। সেটার দৃষ্টান্ত দেখা গেল আরো একবার। স্প্যানিশ লা লিগায় ভিয়ারিয়াল-বার্সেলোনা উপহার দিল রোমাঞ্চকর এক লড়াই। ময়দানী এই লড়াই দেখল আট গোলের থ্রিলার ড্র। মঙ্গলবার রাতে রঙ ছড়ানো ম্যাচ অমীমাংসিত থাকল ৪-৪ গোলে!

barcelona celebrate late goal

যেখানে ম্যাচের শুরুতে দুই গোলে এগিয়ে থেকেও জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে পারল না বার্সেলোনা। পরপর চারটি গোল করার পর আবার জয়বঞ্চিত হলো ভিয়ারিয়াল। ম্যাচের অন্তিম প্রহরে দুই গোল করে স্বস্তির ড্র নিয়ে মাঠ ছাড়ে এরনেস্তো ভালভার্দের বার্সা।

ম্যাচ শুরুর ১৬ মিনিটের মধ্যে স্বাগতিক দর্শকদের স্তব্ধ করে দেয় কাতালান ক্লাবটি। দুই গোল করে ফেলে বার্সা। ফিলিপ্পে কুতনিহোর গোলে এগিয়ে যাওয়ার পর ব্যবধান দ্বিগুণ করেন ম্যালকম। ভালভার্দের দল দারুণ জয়ই দেখছিল তখন। ম্যাচের নাটকীয়তা শুরু এরপরই।

দুই গোলের ধাক্কা সামলাতে বার্সার রক্ষণভাগে সর্বোচ্চ শক্তি প্রয়োগ করে ভিয়ারিয়াল। সুফলটাও পেয়েছে তারা। ২৩ মিনিটে ভিয়ারিয়ালের পক্ষে ব্যবধান কমান নাইজেরিয়ান মিডফিল্ডার স্যামুয়েল (১-০)। ৫০ মিনিটে তোকো একাম্বির দুর্দান্ত গোলে সমতায় ফেরে স্বাগতিক শিবির (২-২)।

পরপর দুই গোল হজম করে হতাশ হয়ে পড়ে বার্সা। তাদের রক্ষণভাগ হয়ে ওঠে আরো ছন্নছাড়া। অবস্থা বেগতিক দেখে কুতিনহোকে উঠিয়ে লিওনেল মেসিকে মাঠে নামান বার্সা কোচ ভালভার্দে। অধিনায়ক মাঠে ধাতস্ত হওয়ার আগেই তৃতীয়বার কেঁপে ওঠে লিগ চ্যাম্পিয়নদের জাল। ৩১ মিনিটে ভিয়ারিয়ালের তৃতীয় গোলটি করেন গোল করেন ভিসেন্তে ইবোরা।

৮০ মিনিটে চতুর্থ গোলের দেখা পায় অবিশ্বাস্য ভিয়ারিয়াল। বার্সা পিছিয়ে যায় দুই গোলে। রীতিমতো অঘটনের শঙ্কা। পরাজয় চোখ রাঙাচ্ছিল বার্সাকে। ম্যাচের বয়স তখন দেড় ঘণ্টা ছুঁই ছুঁই। নির্ধারিত সময়ের শেষ মিনিটে সংশয় দূর করার আভাস দিলেন মেসি। ব্যবধান কমান আর্জেন্টাইন সুপারস্টার। একটু পরই ভিয়ারিয়ালকে হতাশ করলেন লুইস সুয়ারেজ।

শেষ মুহূর্তে ম্যাচের অষ্টম গোল করে উরুগুয়েন স্ট্রাইকার বার্সাকে এনে দেন মহামূল্যবান এক পয়েন্ট। সবমিলিয়ে লিগে যথারীতি শীর্ষে থাকা বার্সার পয়েন্ট দাঁড়াল ৭০-এ। কাল রাতের অন্য ম্যাচে জিরোনাকে ২-০ গোলে হারিয়ে পয়েন্ট ব্যবধান কমিয়ে এনেছে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ। বার্সার সমান ৩০ ম্যাচে ৬২ পয়েন্ট তাদের। এক ম্যাচ কম খেলে ৫৭ পয়েন্ট নিয়ে তিনে আছে রিয়াল মাদ্রিদ।

sheikh mujib 2020