advertisement
আপনি দেখছেন

ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের শীর্ষস্থান নিয়ে কারোর মাথাব্যথা নেই। লিভারপুল নিজেদের এমন পর্যায়ে নিয়ে গেছে যে, তাদের ধরার সাধ্য নেই কারোরই। লিগের যতো রোমাঞ্চ বাকি আছে তার সবটাই পরের স্থানগুলো নিয়ে। এখানে দারুণ লড়াই হচ্ছে। সেরা চারের লড়াইয়ে আছে বেশ কয়েকটা দল।

gabriel jesus 2020

স্বাভাবিকভাবেই লিগ তালিকার দুই ও তিনে থাকা দল দুটির লড়াই ঘিরে বাড়তি প্রত্যাশা ছিল। তার পূর্ণ প্রতিফলন ঘটল ম্যানচেস্টার সিটি ও লেস্টার সিটি দ্বৈরথে। সেখানে বাজিমাত করল ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নরা। কাল রাতে লেস্টার সিটির মাঠে ১-০ গোলে জিতেছে ম্যানচেস্টার সিটি।

সিটিজেনদের এই জয়ের নায়ক গ্যাব্রিয়েল জেসুস। ম্যাচের ৮০ মিনিটে একমাত্র ও জয়সূচক গোলটি করেছেন ব্রাজিলিয়ান স্ট্রাইকার। জেসুস যদি ম্যাচের নায়ক হন তাহলে ম্যানসিটির খলনায়ক সার্জিও অ্যাগুয়েরো। ৬২ মিনিটে পেনাল্টি মিস করে দলকে হতাশ করেছিলেন আর্জেন্টাইন স্ট্রাইকার।

ম্যাচটা জমে উঠেছিল শুরুতেই। গোল হজমের পালা হয়েছিল ম্যানচেস্টার সিটির। জেমি ভার্ডির শট অতিথি গোলরক্ষক এডারসনকে ফাঁকিয়ে দিয়ে বল জালের দিকে এগোচ্ছিল; গোল হওয়ার আগেই উচ্ছ্বাস শুরু করে দেয় লেস্টার সিটি। এরপরই নাটক। ম্যানসিটির পোস্টের কানায় লেগে বল ফিরে আসে! থমকে যায় স্বাগতিকরা।

৩৭ মিনিটে গোল হজম থেকে ম্যানসিটিকে বাঁচান এডারসন। ৬০ মিনিটে অবশ্য এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ ছিল পেপ গার্দিওলার দলের। কিন্তু পেনাল্টি মিস করে বসলেন অ্যাগুয়েরো। চলতি মৌসুমে ম্যানচেস্টারের দুই ক্লাব মিলিয়ে এনিয়ে আটটি পেনাল্টি মিস করল। অথচ লিগে বাকি ১৮ দল সম্মিলিতভাবে পেনাল্টি মিস করেছে সাতটি!

অবশেষে ৮০ মিনিটে স্বস্তির গোল জেসুসের। আলজেরিয়ান মিডফিল্ডার রিয়াদ মাহরেজের কাছ থেকে বল পেয়ে ম্যাচ গোল করেন ব্রাজিলিয়ান তরুণ। এই গোলই ম্যানসিটির জয়ের অবলম্বন হয়ে দাঁড়ায়। এই জয়ে ২৭ ম্যাচে ৫৭ পয়েন্ট নিয়ে নিজেদের দ্বিতীয় স্থান ধরে রেখেছে ম্যানচেস্টার সিটি। সাত পয়েন্ট পিছিয়ে যথারীতি তিনে থাকল লেস্টার সিটি। এক ম্যাচ খেলে সবার ওপরে আছে শিরোপা প্রত্যাশি লিভারপুল। তাদের পয়েন্ট ৭৬।

sheikh mujib 2020