advertisement
আপনি দেখছেন

বিশ্বজুড়ে চলছে করোনাভাইরাস আতঙ্ক। চীনের ‍উহান শহর থেকে সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়েছে ভাইরাসটি। বাংলাদেশেও এই রোগের সংক্রমণ দেখা দিয়েছে। ঝুঁকি এড়াতে এশিয়া কাপ ও বিশ্বকাপ বাছাইয়ের সব ম্যাচ স্থগিত করা হয়েছে। আগামী ২৬ মার্চ সিলেট জেলা স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ-আফগানিস্তান ম্যাচটা আয়োজনের কথা থাকলেও আপাতত তা হচ্ছে না।

juventus celebration 1

চীনের বাইরে দেশগুলোর মধ্যে ইতালিতে ভাইরাসটি যেন মহামারি রূপ নিয়েছে। সোমবার রাত পর্যন্ত দেশটিতে মৃতের সংখ্যা সাড়ে তিন শ ছাড়িয়ে চার শ ছুঁই ছুঁই করছে। জীবন যেখানে মুখ্য; খেলাধুলা গৌণ একটা ব্যাপার। এ কারণেই আগামী ৩ এপ্রিল পর্যন্ত ইতালিতে সব ধরনের খেলাধুলা স্থগিত করা হয়েছে। সোমবার রাতে এই সিদ্ধান্তটি নেওয়া হয়েছে।

রোববার রাতে রুদ্ধধার তুরিন স্টেডিয়ামে খেলা হয়েছে ইতালিয়ান সিরি’এ লিগের জায়ান্ট দুই দল জুভেন্টাস ও ইন্টার মিলানের। এই ম্যাচটা প্রথমে স্থগিত করা হয়েছিল। পরে ম্যাচটার আয়োজন করা হলেও, গ্যালারি ছিল ফাঁকা। দেশটির ফুটবলকর্তাদের সিদ্ধান্তে মাঠে ঢুকতে দেওয়া হয়নি কোনো দর্শককে। মাঠে উপস্থিত ছিলেন কেবল সংবাদকর্মী, অফিসিয়ালস, মাঠকর্মী, রেফারি, কোচ এবং খেলোয়াড়রা।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতেই দর্শকশূন্য মাঠে খেলা হয়েছিল। তখনই ঘরোয়া ফুটবল প্রতিযোগিতার সব খেলা স্থগিতের গুঞ্জন শোনা যায়। অবশেষে আশঙ্কাটা বাস্তবে রূপ নিলো। সোমবার দেশটির ক্রীড়া সংস্থাগুলোর সঙ্গে বৈঠক শেষে সিদ্ধান্ত জানায় ইতালির জাতীয় অলিম্পিক কমিটি (সিওএনআই)। এক বিবৃতিতে কাল রাতে তারা দেশটির সরকারকে ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানায়।

প্রসঙ্গত, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ইতালিতে একদিনেই মারা গেছেন ১৩৩ জন। দেশটির সরকারি দপ্তর থেকে জানানো হয়েছে এ পর্যন্ত ৩৬৬ মানুষের মৃত্যু হয়েছে। সর্বশেষ খবরে বলা হয়েছে, পুরো ইতালিজুড়ে জরুরি অবস্থা জারি করা হয়েছে।