advertisement
আপনি দেখছেন

গত মৌসুমজুড়ে লিওনেল মেসির ইন্টার মিলানে যোগ দেওয়ার গুঞ্জন হয়েছে। আর্জেন্টাইন সুপারস্টারও বার্সেলোনা ছাড়তে মরিয়া হয়ে গেছেন। তবে ইন্টার মিলান নয়, তার ম্যানচেস্টার সিটিতে যাওয়ার খবর প্রবলভাবেই চাউর হয় গণমাধ্যমে। শেষ পর্যন্ত অবশ্য মেসির কোথাও যাওয়া হয়নি, থেকে গেছেন ন্যু ক্যাম্পে।

arturo vidal lionel messi barcelona

কিন্তু থাকা হলো না তার বন্ধু আর্তুরো ভিদালের। মেসি নয়, বরং তাকে ইন্টার মিলানে পাঠিয়ে দিয়েছে কাতালান জায়ান্টরা। এই সপ্তাহেই মিলানে পা রাখবেন চিলিয়ান মিডফিল্ডার। রোববার রাতে খবরটি নিশ্চিত করেছে স্প্যানিশ ও ইতালিয়ান প্রচারমাধ্যম। বন্ধুর বিদায়ে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন মেসি।

কয়েক ঘণ্টা পরই ইন্সটাগ্রামে মেসি লিখেছেন, ‘আমরাই কেবল একে অন্যকে ভালোভাবে জানি। আমার কাছে তুমি সবসময়ই বিস্ময়কর। আমি ভাগ্যবান ব্যক্তিগতভাবে তোমার সঙ্গে পরিচিত হয়েছি। তুমি আমাকে অনেক বিস্ময় উপহার দিয়েছো। এই দুই বছরে আমরা অনেককিছুই ভাগাভাগি করেছি। তুমি একটা চিহ্ন রেখে যাচ্ছো। ড্রেসিংরুম তোমাকে মিস করতে চলেছে।’

arturo vidal lionel messi valldolid vs barcelona

মেসি যোগ করলেন, ‘নতুন অধ্যায়ে নতুন ক্লাবে তোমার জন্য শুভকামনা রইল। নিশ্চিত থাকো আমরা আবার একসঙ্গে পথ চলব।’ মেসির এমন বিদায়ী বার্তার জবাবে ভিদাল লিখেছেন, ‘ধন্যবাদ এলিয়েন! আমি গর্বিত সর্বকালের সেরা খেলোয়াড়ের সঙ্গে খেলতে পেরেছি। তোমার বন্ধুত্বের জন্য ধন্যবাদ। মিস করব তোমাকে। শিগগিরই দেখা হবে।’

গত মৌসুম শেষেই বার্সায় আমূল পরিবর্তনের হাওয়া লাগে। প্রধান কোচ কিকে সেতিয়েনকে ছাঁটাই করে রোনাল্ড কোম্যানকে নিয়োগ দেওয়া হয়। ছেড়ে দেওয়া হয়েছে ইভান রাকিটিচ, ভিদালের মতো তারকা ফুটবলারদের। লুইস সুয়ারেজের ভাগ্য এখনো ঝুলে আছে। তিনিও শুভেচ্ছা জানিয়েছেন ভিদালকে।

দুই বছরে বার্সেলোনার হয়ে ৬৬টি লিগ ম্যাচ খেলেছেন ভিদাল। গোল করেছেন ১১টি। কাতালানদের হয়ে তার একমাত্র সাফল্য ২০১৮-১৯ মৌসুমে লা লিগা শিরোপা জয়। দুই বছর পর তিনি ফিরে যাচ্ছেন ইতালিয়ান ফুটবলে। এখানে জুভেন্টাসের জার্সিতে খেলেছিলেন ভিদাল। তবে তাকে ফুটবল বিশ্ব ভালোভাবে চিনেছে বায়ার্ন মিউনিখের জার্সিতে।

sheikh mujib 2020