advertisement
আপনি পড়ছেন

বোডো গ্লিমটের মাঠে প্রথম লেগে অঘটনের শিকার হয়েছিল এএস রোমা। এগিয়ে থেকেও শেষদিকে ২-১ গোলে হেরে গেছে ইতালিয়ান ক্লাবটি। ঘরের মাঠে ফিরতি লেগে সেই হারের শোধ তুলল রোমা। পরশু রাতে গ্লিমটকে হোসে মরিনহোর দল উড়িয়ে দিয়েছে ৪-০ গোলে। দুই লেগ মিলিয়ে ৫-২ গোলে এগিয়ে রোমা উঠেছে উয়েফা কনফারেনস লিগের সেমিফাইনালে।

jose mourinho as roma head coachহোসে মরিনহো

তাতেই অনন্য একটা কীর্তি হয়ে গেল দলটির পর্তুগিজ কোচের। ইউরোপিয়ান ক্লাব টুর্নামেন্টে সবচেয়ে বেশিবার সেমিফাইনালে ওঠার রেকর্ড গড়লেন মরিনহো। চ্যাম্পিয়নস লিগ, ইউরোপা লিগ ও কনফারেনস লিগ মিলিয়ে মোট ১১ বার সেমিফাইনালের টিকিট পেয়েছে ‘স্পেশাল ওয়ানে’র দল। তবে কনফারেনস লিগে এবারই প্রথম।

ইউরোপিয়ান প্রতিযোগিতায় বেশিবার সেমিফাইনালে খেলার দৌড়ে মরিনহো আগেই পেছনে ফেলেছেন রিয়াল মাদ্রিদের ইতালিয়ান কোচ কালো আনচেলত্তি (৯), ম্যানচেস্টা সিটির প্রধান কোচ পেপ গার্দিওলা (৯), বায়ার্ন মিউনিখের সাবেক জার্মান কোচ ইয়ুপ হেইঙ্কেস (৮) ও ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের প্রাক্তন কোচ স্যার অ্যালেক্স ফার্গুসনকে (৮)। এবার নিজেকে ছাড়িয়ে যাওয়ার পালা।

roma logoরোমা

রোমার দুর্দান্ত জয়ের পর আরো একটা রেকর্ড গড়েছেন মরিনহো। ইতিহাসের প্রথম ও একমাত্র কোচ হিসেবে উয়েফার তিনটি ক্লাব টুর্নামেন্টের সেমিফাইনালের টিকিট পাওয়ার উদাহরণ দেখালেন পর্তুগিজ কোচ। মরিনহোর হাত ধরে ইতালিয়ানদের এক যুগের অপেক্ষার অবসান ঘটানোর বিরাট একটা সুযোগ আছে।

ইউরোপিয়ান ক্লাব প্রতিযোগিতায় সবশেষ ইতালিয়ান কোনো ক্লাব হিসেবে শিরোপা জিতেছিল ইন্টার মিলান। ২০১০ সালে এই মরিনহোর অধীনেই চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতে ত্রিমুকুট পরে সান সিরোর দলটি। এবার পর্তুগিজ কোচ পারবেন তো ইতালিয়ানদের ১২ বছরের দুঃখ দূর করতে? এ যাত্রায় ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে মরিনহোর রোমা প্রতিপক্ষ হিসেবে পেয়েছে লেস্টার সিটিকে।