advertisement
আপনি পড়ছেন

মিয়ানমারে রাখাইন প্রদেশের রোহিঙ্গা মুসলিম জনগোষ্ঠীর ওপর দেশটির সরকারি বাহিনীর নির্মম অত্যাচার বন্ধে জাতিসংঘকে হস্তক্ষেপের আহ্বান জানিয়েছে ইসলামি সহযোগিতা সংস্থা বা ওআইসি।

rohinga barma 4

মিয়ানমার বিষয়ক ওআইসি’র বিশেষ দূত সৈয়দ হামিদ আলবার রোহিঙ্গাদের ব্যাপারে উদ্বেগ জানিয়ে জাতিসংঘের হস্তক্ষেপ কামনা করেন। বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে তিনি একথা বলেন।

তিনি বলেন, রোহিঙ্গা সংকট এখন আর মিয়ানমারের অভ্যন্তরীণ বিষয় নয়। এটি নিয়ে সারা বিশ্বই এখন উদ্বেগের মধ্যে আছে। এই সংকট সংকট নিরসনে জাতিসংঘের এখনই পদক্ষেপ নেয়া উচিত।

ওআইসির পক্ষ থেকে তিনি রয়টার্সকে বলেন, কম্বোডিয়া বা রুয়ান্ডার মতো মিয়ানমারে আরেকটি গণহত্যা ওআইসি দেখতে চায় না। এ ব্যাপারে আমাদের অতীত থেকে শিক্ষা নেয়া উচিৎ।

ইতোমধ্যেই রোহিঙ্গা ইস্যুটিকে সামনে রেখে ৫৭ দেশের সংগঠন ওআইসি জরুরি বৈঠক ডেকেছে। আগামী বৃহস্পতিবার মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালালামপুরে এই বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে।

উল্লেখ্য, গত বছরের নভেম্বর থেকে মিয়ানমারের সরকারি বাহিনী দেশটির রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর ওপর হামলা চালাচ্ছে। ধারাবাহিক এই হামলায় শতাধিক রোহিঙ্গা নিহত হওয়া ছাড়াও লক্ষাধিক মানুষ ঘরছাড়া হয়েছে।