advertisement
আপনি দেখছেন

নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রীর জেসিন্ডা আরডার্ন ঘোষণা দিয়েছেন, ক্রাইস্টচার্চে দুটি মসজিদে হামলায় ব্যবহৃত সামরিক ধরনের আধা-স্বয়ংক্রিয় রাইফেল ও উচ্চ ক্ষমতা ম্যাগাজিনের মতো অস্ত্র শিগগিরই তার দেশে বিক্রয় নিষিদ্ধ করা হবে। স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার তিনি বলেন, পরবর্তী মাসের মধ্যেই নতুন আইনটি কার্যকর হবে।

new zealands pm jasmine arderna

কিউই প্রধানমন্ত্রী বলেন, হামলায় গ্রেপ্তার ব্যক্তি তার অস্ত্রগুলো বৈধভাবে কিনেছিলেন এবং ৩০ রাউন্ড ম্যাগাজিন ব্যবহার করে ওই অস্ত্রগুলোর ক্ষমতা বাড়িয়েছিল। তিনি অনলাইন মাধ্যমে সহজেই এসব ক্রয় করেছিল। এদিকে আগামীকাল শুক্রবার ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামলার এক সপ্তাহ পূর্ণ হবে। মসজিদের এক ইমাম বলেছেন, তিনি ক্রাইস্টচার্চে দুটি মসজিদের হামলার এক সপ্তাহ পর আগামীকালের জুমার নামাজে তিন থেকে চার হাজার মুসল্লি আসবেন বলে আশা করছেন।

গত ১৫ মার্চ নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে দুটি মসজিদে জুমার নামাজের সময় ব্রেন্টন ট্যারেন্ট নামে এক উগ্রবাদী শ্বেতাঙ্গ নির্বিচারে গুলি চালায়। এতে পাঁচজন বাংলাদেশিসহ অন্তত ৫০ জন নিহত ও অর্ধ-শতাধিক ব্যক্তি আহত হন। এই ঘটনার পরই অস্ত্র বিক্রির ব্যাপারে এমন সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছে নিউজিল্যান্ড। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বর্তমান বিশ্বের প্রেক্ষাপটে স্বয়ংক্রিয় অস্ত্র বিক্রির বিষয়ে দেশটির আইন আগে থেকেই কঠোর হওয়া উচিত ছিলো।