advertisement
আপনি দেখছেন

অধিকৃত জম্মু-কাশ্মিরে ভারতীয় হস্তক্ষেপের মধ্য টানা তিন মাস গৃহবন্দি থাকার পর সেখানকার দুই নেতাকে মুক্তি দেয়া হয়েছে। দেশটির কর্তৃপক্ষ গতকাল সোমবার পিপলস ডেমোক্রেটিক পার্টির (পিডিপি) নেতা দিলওয়ার মীর ও গোলাম হাসান মীরকে মুক্তি দেয়ার কথা জানায়।

pdp gs dilawar mirপিডিপি সাধারণ সম্পাদক দিলওয়ার মীর

ভারতের এই সময়'র এক প্রতিবেদনে বলা হয়, চলতি বছরের কাশ্মিরের ৩৭০ ধারা অবলুপ্ত ঘোষণার দিন গত ৫ আগস্ট থেকে পিডিপির এই দুই নেতা নিজ বাড়িতে গৃহবন্দি ছিলেন। প্রায় ১১০ দিন বন্দি থাকার পর ভারতের কেন্দ্রশাসিত কাশ্মিরের নতুন প্রশাসন তাদের মুক্তি দিলো।

সদ্য মুক্তি পাওয়া দিলওয়ার মীর ও গোলাম হাসান মীর দুজনেই কাশ্মিরের বরামুলা এলাকার বাসিন্দা। তাদের মধ্যে গোলাম হাসান ২০০২ সালে মুফতি মোহাম্মদ সাঈদের সরকারের মন্ত্রী ও বিধায়ক ছিলেন। পরে ডেমোক্রেটিক পার্টি ন্যাশনালিস্ট (ডিপিএন) নামে দল গঠন করেন তিনি। আর দিলওয়ারও সাবেক মন্ত্রী ও বিধায়ক ছিলেন।

এদিকে জম্মু-কাশ্মিরের আরও দুই সাবেক বিধায়ককে আটকে রাখা এমএলএ হোস্টেল থেকে নিজ বাড়িতে পাঠানো হয়েছে। তবে আশরাফ মীর ও হাকীন ইয়াসিন নামে এ দুজনকে গৃহবন্দিই থাকতে হচ্ছে। তাদেরসহ এমএলএ হোস্টেলে কাশ্মিরের ৩৪ জন রাজনৈতিক নেতাকে আটকে রাখা হয়।

এছাড়া দীর্ঘদিন ধরে গৃহবন্দি থাকায় নেতাদের স্বাস্থ্যঝুঁকির কথা চিন্তা করে বিধায়ক হোটেলে আটক এসব নেতাদের কয়েকজনকে গতকাল কয়েক ঘণ্টার জন্য বাড়িতে যাওয়ার অনুমতিও দেয়া হয়। তাদের উপত্যকার বাইরে যাওয়ার অনুমতি দেয়া হতে পারে বলে জানা গেছে। তবে এখনও বন্দি থাকতে হচ্ছে কাশ্মিরের তিন সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ফারুক আবদুল্লাহ, ওমর আবদুল্লাহ ও মেহবুবা মুফতিকে।