advertisement
আপনি দেখছেন

ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য নাগাল্যান্ডে কুকুরের মাংস আমদানি-রপ্তানি, বাণিজ্য, কেনাবেচা সর্বোপরি ভক্ষণ নিষিদ্ধ করেছে রাজ্য সরকার। দীর্ঘদিন ধরে এ নিয়ে আন্দোলন করে আসছিল পশু অধিকারকর্মীরা। তাই সরকারের এই সিদ্ধান্তকে তারা স্বাগত জানিয়েছে। তারা বলছে, পশুর অধিকার সংরক্ষণে এটি একটি টার্নিং পয়েন্ট। এর ফলে ভারতজুড়েই ধীরে ধীরে কুকুর নিধন বন্ধ হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

dog shock new

উল্টো দিকে, সরকারের এই সিদ্ধান্তের সমালোচনা করছেন কেউ কেউ। তারা বলছেন, এতে করে রাজ্যের খাদ্য শৃঙ্খলায় অস্থিতিশীলতা দেখা দিতে পারে। তারা এই সিদ্ধান্ত থেকে সরকারকে সরে আসার আহ্বান জানিয়েছে।

ভারতে কুকুরের মাংস ভক্ষণ নিষিদ্ধের জন্য জন্য যে সংগঠনটি অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে সেটি হল এথিক্যাল ট্রিটমেন্ট অব এনিমেলস (পেটা)। এছাড়া আরো আছে দ্য হিউম্যান সোসাইটি ইন্টারন্যাশনাল (এইচএসআই)। তাদের দীর্ঘ আন্দোলনের ফসল সরকারের এই আদেশ। এখনও ভারতের আরো কয়েকটি রাজ্যে কুকুরের মাংস খাওয়া বৈধ। সংগঠন দুটি এবার সেদিকে মনোযোগ দেবে বলে জানিয়েছে।

dog

দ্য হিউম্যান সোসাইটি ইন্টারন্যাশনাল-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক অলোকপর্না সেনগুপ্তা বলেন, এ বছরের শুরুতেই মিজোরাম সরকার আইন করে কুকুরের মাংস খাওয়া নিষিদ্ধ করেছে। তাই আমরা আশাবাদী ছিলাম, নাগাল্যান্ডেও আমাদের দাবি আদায় করতে পারবো। শেষ পর্যন্ত তা হয়েছে। সরকারকে অনেক অনেক ধন্যবাদ। এর প্রভাবে সারা ভারতেই কুকুর ভক্ষণ নিষিদ্ধ হবে বলে আমাদের বিশ্বাস।

sheikh mujib 2020