advertisement
আপনি দেখছেন

বিশ্বব্যাপী প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের দাপট চলছে এক বছরেরও বেশি সময়। কমবেশি এই পুরোটা সময় ধরে বন্ধ আছে আক্রান্ত দেশগুলোর শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। বিশেষকরে, এতে মারাত্মক ক্ষতির মুখোমুখি স্কুল শিক্ষার্থীরা। শিশুদের নিয়ে কাজ করা জাতিসংঘের বিশেষায়িত সংস্থা ইউনিসেফ বিভিন্ন সময় এ ব্যাপারে শুধু উদ্বেগ জানালেও এবার স্কুল খুলে দেয়ার আহ্বান জানিয়েছে।

unicef logo 1

মঙ্গলবার (১২ জানুয়ারি) এ সংক্রান্ত একটি বিবৃতি দিয়েছেন ইউনিসেফের নির্বাহী পরিচালক হেনরিয়েটা ফোর। দীর্ঘ বিবৃতিতে বিভিন্ন পরিসংখ্যানের মাধ্যমে স্কুল শিক্ষার্থীদের সীমাহীন ক্ষতির কথা তুলে ধরে তিনি বলেন, শিশু শিক্ষার্থীদের শিক্ষা কার্যক্রম যদি আরও এক বছর ব্যাহত হয় তাহলে সেই ক্ষতির ভার শিশুরা বইতে পারবে না। তাই এখনই স্কুল খোলার প্রচেষ্টা নেয়া উচিত।

বিবৃতি আরো বলা হয়েছে, এক বছরেরও বেশি সময় ধরে স্কুল বন্ধ থাকায় রীতিমতো বিপর্যয় নেমে এসেছে। শিশুদের মানসিক বিকাশ মারাত্মকভাবে ব্যাহত হচ্ছে। একই সাথে শারীরিকভাবেও ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে তারা, কারণ স্কুল-কেন্দ্রিক খাবারের অভাবে ক্ষুধার্তই থেকে যাচ্ছে অনেক শিশু।

affect update 10april

পরিসংখ্যান তুলে ধরে ইউনিসেফ জানাচ্ছে, এখন পর্যন্ত স্কুলের বাইরে থাকা নতুন শিশুর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ কোটি ৪০ লাখে। এটি এমন মাত্রায় বাড়ছে যা বিগত দিনগুলোতে দেখা যায়নি। তাই অনতিবিলম্বে স্কুল খোলার বিষয়ে সম্ভাব্য সবগুলো পথ নিয়ে বিশ্লেষণ করা প্রয়োজন।

sheikh mujib 2020