advertisement
আপনি দেখছেন

মার্কিন বাহিনী আফগানিস্তান থেকে চলে যাচ্ছে, এটা রাশিয়ার জন্য গুরুত্বপূর্ণ বলে মন্তব্য করেছেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। রাজধানী মস্কোয় এক অনুষ্ঠানে গতকাল বৃহস্পতিবার দেওয়া ভাষণে এমন মন্তব্য করেন তিনি।

russian president vladimir putin 1রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন, ফাইল ছবি

পুতিন বলেন, আফগানিস্তান ছেড়ে চলে যাচ্ছে মার্কিন বাহিনী। রাশিয়ার বেশ কাছাকাছি দেশটি (আফগানিস্তান)। আফগানিস্তানের সঙ্গে তাজিকিস্তানের সরাসরি সীমান্ত রয়েছে। আর এই তাজিকিস্তানে রয়েছে আমাদের একটি সামরিক ঘাঁটি। এ ছাড়া রাশিয়ার নেতৃত্বাধীন সামরিক জোট কালেক্টিভ সিকিউরিটি ট্রিটি অর্গানাইজেশনেরও (সিএসটিও) সদস্য আফগানিস্তান।

পার্সটুডের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, এই অঞ্চলে আমরা কীভাবে সম্পর্ক তৈরি করব, কীভাবে এই অঞ্চলের নিরাপত্তা নিশ্চিত করব; সেটি আমাদের কাছে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

us soldiers leaving afghanistanআফগানিস্তান থেকে চলে যাচ্ছে মার্কিন সেনারা

এর আগে বুধবার সুইজারল্যান্ডের জেনেভায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে বৈঠক করেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট। ওই বৈঠকেও আফগান ইস্যু নিয়ে আলোচনা হয় বলে জানান পুতিন।

এদিকে, ন্যাটো বাহিনী আফগানিস্তান থেকে চলে যাওয়ার পর তুরস্কের সেনারা সেখানকার বিমানবন্দরের নিরাপত্তায় প্রধান ভূমিকা পালন করবে। যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জেক সুলিভান এ তথ্য জানিয়েছেন।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত সোমবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এবং তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ানের মধ্যকার বৈঠকে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হয়েছে। মার্কিন বাহিনীর আগামী ১১ সেপ্টেম্বরের মধ্যে আফগানিস্তান থেকে পুরোপুরি সরে যাওয়ার কথা রয়েছে।