advertisement
আপনি দেখছেন

বিশ্বের অনেক দেশ এখনো প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস প্রতিরোধী ভ্যাকসিন (টিকা) হাতে পায়নি। আবার অনেক দেশ পেলেও সেটা প্রয়োজনের তুলনায় খুবই সামান্য। অথচ ফিলিপাইনের লোকদের মধ্যে নাকি ভ্যাকসিন নেওয়ার আগ্রহ কম।

philippine president rodrigo duterteফিলিপাইনের প্রেসিডেন্ট রদ্রিগো দুতের্তে

তাই ক্ষেপে গেছেন ফিলিপাইনের প্রেসিডেন্ট রদ্রিগো দুতের্তে। সতর্ক করে বলেছেন, করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন নিতে যে অস্বীকৃতি জানাবে তাকে জেলে যেতে হবে। গতকাল সোমবার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে দেওয়া এক ভাষণে এ হুঁশিয়ারি দেন তিনি।

কাতারভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম আলজাজিরা এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, ফিলিপাইনের প্রেসিডেন্ট এদিন জনগণের উদ্দেশে বলেছেন, আপনাকে যেকোনো একটা বেছে নিতে হবে। হয় আপনাকে ভ্যাকসিন নিতে হবে, না হয় আমরা আপনাকে জেলে ঢুকাবো। যারা ভ্যাকসিন নিচ্ছেন না, তাদের বোকা বলেও উল্লেখ করেছেন দুতের্তে।

philippine mobile vacc busফিলিপাইনে ভ্রাম্যমাণ টিকাদান কর্মসূচি

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ফিলিপাইনে চলতি বছরের মার্চ মাস থেকে ভ্যাকসিন কার্যক্রম শুরু হয়েছে। কিন্তু দেশটির রাজধানী ম্যানিলাসহ অন্যান্য ভ্যাকসিন প্রদান কেন্দ্রগুলোতে লোকজনের তেমন উপস্থিতি নেই। ভ্যাকসিনের প্রতি দেশটির লোকজনের আগ্রহ কম লক্ষ করায় ক্ষেপে গেছেন প্রেসিডেন্ট দুতের্তে।

ফিলিপাইনের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্যমতে, দেশটিতে এ পর্যন্ত ১৩ লাখের বেশি মানুষ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে কমপক্ষে ২৩ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

উল্লেখ্য, এর আগে ফিলিপাইনের প্রেসিডেন্ট রদ্রিগো দুতের্তে ঘোষণা দিয়েছিলেন যে, দেশে কেউ করোনার ভ্যাকসিন উদ্ভাবন করতে পারলে তাকে দুই লাখ মার্কিন ডলার পুরস্কার দেওয়া হবে।