advertisement
আপনি দেখছেন

আগামী নভেম্বরে আফগানিস্তান নিয়ে আঞ্চলিক দেশগুলোর মধ্যে একটি বৈঠকের আয়োজন করা হয়েছে। বৈঠকে পাকিস্তানের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা মঈদ ইউসুফকে আমন্ত্রণ জানিয়েছে ভারত। টাইমস অব ইন্ডিয়া গতকাল শনিবার রিপোর্ট করেছে, নভেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহে সম্মেলনটি অনুষ্ঠিত হবে। ভারত ইতোমধ্যে রাশিয়া, চীন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং অন্যান্য দেশের সাথে যোগাযোগ করেছে। দ্য ওয়্যার।

pakistan national security adviser moeed yusufপাকিস্তানের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা মঈদ ইউসুফ

প্রতিবেদনে বলা হয়, সম্মেলনে তালেবানকে আমন্ত্রণ জানানোর কোনো পরিকল্পনা এখনও হয়নি। দ্য হিন্দুর রিপোর্টে বলা হয়েছে, ইউসুফকে তার ভারতীয় সমকক্ষ অজিত দোভালের কাছ থেকে আমন্ত্রণ পাঠানো হয়েছে। পাকিস্তান এখনও সেই আমন্ত্রণের জবাব দেয়নি। 

খবরে বলা হচ্ছে, পাকিস্তান যদি ভারতের এই আমন্ত্রণ গ্রহণ করে এবং বৈঠকে অংশ নেয়, তাহলে তা হবে ২০১৬ সালের পর পাকিস্তানের কোনো উচ্চপদস্থ কর্মকর্তার প্রথম ভারত সফর। ওই সময় পাকিস্তানের নওয়াজ শরীফ সরকারের পররাষ্ট্র উপদেষ্টা সারতাজ আজিজ অমৃতসরে এক আন্তর্জাতিক মতবিনিময় সভায় অংশ নিয়েছিলেন।

ajit doval indian nsaঅজিত দোভাল

তারপর থেকে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে সম্পর্কের অবনতি ঘটতে থাকে এবং ২০১৯ সালে তা চূড়ায় পৌঁছে যায়। দুই দেশ প্রতিশোধমূলক পাল্টাপাল্টি বিমান হামলা চালায়। সীমান্তে সন্ত্রাসবাদকে সমর্থন করার অভিযোগ এনে ভারত বিভিন্ন আন্তর্জাতিক প্ল্যাটফর্মে পাকিস্তানকে অব্যাহতভাবে আক্রমণ করে আসছে।

ভারত এর আগে গত মে মাসে আঞ্চলিক দেশগুলোর সাথে সম্মেলন করার পরিকল্পনা করেছিল, কিন্তু কোভিড মহামারির কারণে তা স্থগিত করে দেওয়া হয়। সেই সম্মেলনে আফগান সরকারকে আমন্ত্রণ জানানোর পরিকল্পনা করেছিল ভারত। এখন নতুন করে ডাকা বৈঠকে তালেবান সরকারকে আমন্ত্রণ জানানোর কোনো পরিকল্পনা নেই ভারতের।

ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর ২০ অক্টোবর রাশিয়ায় মস্কো ফরম্যাটের একটি আলোচনায় অংশ নেবেন। ওই আলোচনায় আফগানিস্তানের উপ-প্রধানমন্ত্রী আবদুল সালাম হানাফিও অংশ নেবেন বলে জানা গেছে।