advertisement
আপনি পড়ছেন

বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ও আফগান সরকারের স্পষ্টবাদী সমালোচক ফয়জুল্লাহ জালালকে মুক্তি দিয়েছে তালেবান। তাকে গত সপ্তাহে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। তার পরিবারের একজন সদস্য এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন। এপি।

professor jalal afghanistanঅধ্যাপক ফয়জুল্লাহ জালাল

ফয়জুল্লাহ জালালের মেয়ে হাসিনা জালাল বলেছেন, বাবাকে তালেবানের হেফাজত থেকে মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় বাজে মন্তব্য করার জন্য অভিযুক্ত হয়েছিলেন তিনি। তালেবানের বক্তব্য, ওই মন্তব্য জনগণকে সরকারের বিরুদ্ধে উসকানি দেয় এবং মানুষের মর্যাদা নিয়ে খেলা করে।

৯ জানুয়ারি তালেবানের গোয়েন্দা সংস্থা অধ্যাপক জালালকে আটক করেছিল। বিষয়টি নিশ্চিত করে এক টুইটে জানায়, সরকারি দপ্তরের বিরুদ্ধে অভিযোগ করার জন্য একজন অধ্যাপককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

আটকের পর অধ্যাপক জালাল সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক সমর্থন পেয়েছিলেন। অনেক ব্যবহারকারী জালালের ছবি পোস্ট করেছেন। এমনকি তার মুক্তির দাবিতে কাবুলে নারীদের একটি ছোট দল বিক্ষোভও করেছে।

প্রায় ২০ বছরের যুদ্ধের পর ৩১ অগাস্ট আমেরিকার সেনা বিশৃঙ্খলার মধ্য দিয়ে কাবুল থেকে প্রস্থান করে। এর আগে তালেবানরা আগস্টের মাঝামাঝিতে আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রণ নেয়। তালেবান এর আগেও ১৯৯৬-২০০১ সময়ে আফগানিস্তানের ক্ষমতায় ছিল।

তালেবান ক্ষমতায় আসার পর থেকে আফগানিস্তান বড় ধরনের মানবিক সংকটের মুখোমুখি হয়েছে। জাতিসংঘ সতর্ক করে দিয়েছে, দেশটির ৯০ শতাংশ মানুষ মারাত্মক খাদ্যাভাবে রয়েছে।

তালেবান এর আগেও অনেক সমালোচনাকারীকে গ্রেপ্তার করেছে। তবে তাদের স-সম্মানে মুক্তিও দিয়েছে। অধ্যাপক জালালের মুক্তির মাধ্যমে আরও একটি নজির স্থাপন করল তালেবান সরকার।