advertisement
আপনি পড়ছেন

বছরখানেক আগে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টের পদে ডোনাল্ড ট্রাম্পের স্থলাভিষিক্ত হন জো বাইডেন। তাকে ঘিরে প্রত্যাশা ছিল অনেক। কিন্তু সাম্প্রতিক এক জরিপে বলছে, আমেরিকার দুই-তৃতীয়াংশের বেশি ভোটার মনে করেন, জো বাইডেনের নেতৃত্বে ভুল পথে হাঁটছে যুক্তরাষ্ট্র।

biden 2জো বাইডেনের জনপ্রিয়তা নিম্নমুখী

মর্নিং কনসাল্ট এবং পলিটিকোর যৌথভাবে পরিচালিত এক জনমত জরিপে এমন তথ্য উঠে এসেছে। যেখানে দেখা যায়, দেশটির ৬৮ ভাগ ভোটার মনে করছেন জো বাইডেনের নেতৃত্ব যুক্তরাষ্ট্রের জন্য যথাযথ হচ্ছে না। দেশ ভুল পথে হাঁটছে। বিপরীতে ৩২ শতাংশ ভোটার মনে করছেন, বাইডেন ঠিক পথেই আছেন। জরিপের এমন ফলাফলে ডেমোক্রেট নেতৃবৃন্দ মনে করছেন, জনমতের এই প্রভাব চলতি বছর অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া মধ্যবর্তী নির্বাচনে বড় ধরনের প্রভাব ফেলতে পারে।

জনমত জরিপের দেওয়া অন্য তথ্যানুসারে এও জানা যায়, ৪১ শতাংশ মার্কিন নাগরিক প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের কার্যকলাপে সন্তুষ্ট। বিপরীতে ৫৬ ভাগ মনে করেন, বাইডেনের এক বছরের কার্যকলাপ তাদের সন্তুষ্ট করতে পারেনি। কয়েকদিন আগে মার্কিন টেলিভিশন চ্যানেল সিবিএসের এক জরিপে দেখা গিয়েছিল, দেশটির অর্ধেক মানুষই প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন নেতৃত্বের প্রতি হতাশ ও মনঃক্ষুণ্ন।

midterm electionsমধ্যবর্তী নির্বাচন নিয়ে শঙ্কায় ডেমোক্রেটরা

গত বছরের আগস্ট মাসে আফগানিস্তান থেকে আকস্মিকভাবে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার করেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের প্রশাসন। এর পরপরই পুরো আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নেয় তালেবান। এ ঘটনায় বাইডেনের জনপ্রিয়তা অনেকখানি কমে যায়। তবে বাইডেন দাবি করেন, তার সে পদক্ষেপে কোনো ভুল ছিল না।

বাইডেন সেনা প্রত্যাহার করলেও বিষয়টি নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছিল ট্রাম্পের আমলেই। তারই চূড়ান্ত রূপ দেখা যায় গত বছরের আগস্টে। কিন্তু তাতে বাইডেনের জনপ্রিয়তায় ধস নামে। এছাড়া মূল্যস্ফীতিসহ বেশ কিছু অভ্যন্তরীণ ইস্যুতে তিনি জনগণের চাপের মুখে রয়েছেন।

তবে পরিস্থিতি যেমনই হোক না কেন, এখনই মধ্যবর্তী নির্বাচন নিয়ে চিন্তায় পড়ে গেছেন ডেমোক্রেট নেতারা।