আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 15 মিনিট আগে

কোন সন্দেহ নেই এই মুহূর্তে বিশ্বের অন্যতম সেরা খেলোয়াড় আর্জেন্টাইন অধিনায়ক, বার্সার প্রাণভোমরা লিওনেল মেসি। এইতো গতকালও তিনি রিয়ালের মাঠে গিয়ে নাস্তানাবুদ করেছেন রোনালদোর রিয়াল মাদ্রিদকে। অন্যদিকে কিছুটা নিরবে নিভৃতে মেসির পেছনে ছুটছেন এক গোলের 'হ্যারিকেন'। যেই ঝড়ে ম্রিয়মান হয়ে যেতে পারেন মেসির মতো মহাতারকাও।

harry kane tottenham

কোন খেলোয়াড় গোলের পর গোল করলে তাকে গোলমেশিন বলা যায়। আবার কোন খেলোয়াড় যদি হ্যাটট্রিকের পর হ্যাটট্রিক করেন তবে তাকে কি বলা যেতে পারে 'হ্যাটট্রিক মেশিন'? বলা হচ্ছে টটেনহাম হটস্পার্স স্ট্রাইকার হ্যারি কেনের কথা। নামের বৈচিত্র্যের মতো তার কাণ্ড-কারখানা। ২০১৭ সালে এই 'হ্যাটট্রিক মেশিনের' মোট হ্যাটট্রিকের সংখ্যা সাত-সাতটি! এই সংখ্যাই বলে দেয় কি তীব্র গতিতে ছুটছেন ২৪ বছর বয়সী তারকা। অন্যদিকে মেসির হ্যাটট্রিক মাত্র তিনটি।

পরিসংখ্যান বলে দিচ্ছে, হ্যারি কেনের ঝড় যদি না থামে তাহলে তিনি মেসিকে পেছনে ফেলে উঠবেন অনন্য উচ্চতায়। চলতি বছর ক্লাব ও জাতীয় দল মিলে ৪৯ ম্যাচে কেন করেছেন ৫৩টি গোল। অন্যদিকে ১৫টি ম্যাচ বেশি খেলে (৬৪টি) মেসি করেছেন ৫৪টি। এদিকে ২০১৭ সালে আর কোনো ম্যাচ খেলার সুযোগ নেই মেসির। তবে কেন এক ম্যাচ খেলার সুযোগ পাবেন। আগামী মঙ্গলবার প্রিমিয়ার লিগে সাউদাম্পটনের বিপক্ষে সেই ম্যাচে যদি দুই গোল করেন তাহলেই টপকে যাবেন মেসিকে। আর এক গোল করলেই স্পর্শ করবেন আর্জেন্টাইন ফুটবল 'জাদুকর'কে।

কেনের সমান সংখ্যক গোল করেছেন রিয়াল মাদ্রিদের ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। তিনি ৫৯ ম্যাচে করেছেন ৫৩ গোল, বায়ার্ন মিউনিখের রবার্ট লেভানডভস্কি করেছেন ৫৫ ম্যাচে ৫৩ গোল এবং পিএসজি তারকা এডিনসন কাভানি করেছেন ৬২ ম্যাচে ৫৩ গোল। কিন্তু চলতি বছর তাদের গোলের সংখ্যাটা বাড়ানো আর কোন সুযোগ নেই। ফলে হ্যারি কেনের সামনে বিশাল সুযোগ আলোচনায় আসার।

আলোচনার বাইরে থাকা এই ফুটবলার চলতি বছর বার্নলির বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করে ১৯৯৫ সালে গড়া অ্যালান শিয়েরারের প্রিমিয়ার লিগে এক পঞ্জিকাবর্ষে সর্বোচ্চ গোলের (৩৬ গোল) রেকর্ডও ছুঁয়েছেন। টটেনহাম কোচ মাউরিচিও পচেত্তিনো বলছেন, 'হ্যারি কেন যেভাবে ছুটছেন তাতে বিশ্ব সেরা হতে বেশি সময় নেবে না সে। গোলের জন্য তার যে ক্ষুধা, সেটিই তাকে সামনে নিয়ে যাবে।'

Add comment

Security code
Refresh


advertisement