আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 52 মিনিট আগে

মাগুরা আদর্শ কলেজে সাধারণ ছাত্রদের ফরম পূরণের টাকা নিয়ে ছাত্রলীগের দুই নেতা পালিয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ফলে কলেজটির ৫৭ শিক্ষার্থী এবারের উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় অংশ নিতে পারছে না। কলেজ কর্তৃপক্ষ বিষয়টি পুরোপুরি স্বীকার করলেও তাদের করার কিছুই নেই বলে জানিয়েছেন। এমন অবস্থায় পরীক্ষায় অংশগ্রহণ নিয়ে বেকায়দায় পড়েছেন শিক্ষার্থীরা।

magura college

আগামীকাল সোমবার থেকে শুরু হতে যাচ্ছে এবারের উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা। অথচ মাগুরা আদর্শ কলেজের মানবিক, বাণিজ্য ও বিজ্ঞান শাখার মোট ৫৭ জন শিক্ষার্থী এখনো প্রবেশপত্র পায়নি। কলেজের সংশ্লিষ্ট শিক্ষকদের কাছ থেকে জানা যায়, এই ৫৭ জনের পরীক্ষার ফরম পূরণ করে বোর্ডে পাঠানোই হয়নি।

এমন ঘটনার শিকার মানবিক বিভাগের শিক্ষার্থী ইমন হোসেন শান্ত বলেন, 'এইচএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণ করার কথা বলে কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি নাজমুল হুদা অমি এবং ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আমিন হোসেন দুই দফায় ৮ হাজার ৩শ’ টাকা নিয়েছে। কিন্তু আজ জানলাম তারা আমার ফরম পূরণ না করে টাকাগুলো মেরে দিয়েছে।'

টাকা মেরে দেয়ার অভিযোগ করেন একই বিভাগের ছাত্র রিয়াজ হোসেন। তিনি বলেন, 'আমিসহ আমার এক বন্ধুর কাছ থেকে ছাত্রলীগের ওই দুই নেতা ১৬ হাজার ৬শ’ টাকা নেন। টাকার পাশাপাশি ফরম পূরণের সকল কাগজপত্র দিয়েছি। কিন্তু তারা টাকা আত্মসাত করেছে। এখন তাদের পাওয়া যাচ্ছে না, নাম্বার বন্ধ।'

কলেজের সাধারণ শিক্ষার্থীরা জানান, ফরম ফিলাপের কথা বলে নিয়মিত-অনিয়মিত মিলিয়ে ৫৭ শিক্ষার্থীর কাছ থেকে ছাত্রলীগের ওই দুই নেতা অন্তত সাড়ে ৪ লাখ টাকা নিয়েছেন। কিন্তু ফরম পূরণ না করে টাকা নিয়ে পালিয়েছেন তারা। এ ব্যাপারে ছাত্রলীগের অভিযুক্ত ওই নেতাকে মোবাইলে যোগাযোগ করে পাওয়া যায়নি।

এ বিষয়ে কলেজ অধ্যক্ষ সূর্য্যকান্ত বিশ্বাস জানান, ৫৫ জন শিক্ষার্থীর বঞ্চনার বিষয়টি আসলেই দু:খজনক। তবে শেষ মুহূর্তে ৬ জনের জন্যে বোর্ডে আবেদন করা হয়েছে। তবে নির্ধারিত সময়ের পরে এই আবেদন করায় তারা পরীক্ষার সুযোগ পাওয়ার সম্ভাবনা অনেক কম।