advertisement
আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 15 মিনিট আগে

সম্প্রতি বেশ কয়েকটি ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় নড়েচড়ে বসেছে রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (রাজউক)। ইতোমধ্যেই ভবনের উপর নজর বাড়াতে বেশ কয়েকটি পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে সংস্থাটি। যার মধ্যে ভবন নির্মান এবং পরিকল্পনা বিশেষভাবে স্থান পেয়েছে।

rajuk building

প্রথমদিকে সংস্থাটি তাদের আওতাধীন ১০ তলা ভবনের উপরের ভবনগুলোর বিস্তারিত তথ্য সংগ্রহ করবে। তথ্য সংগ্রহের পরে অনুসন্ধান করে দেখবে ভবনগুলো রাজউকের নিয়ম মেনে নেয়া হয়েছে কিনা! তারপরে ধারাবাহিকভাবে তারা পদক্ষেপ নিবেন।

রাজউকের এবারের কর্মপরিকল্পনায় প্রথমে ৮টি জোনে বিভক্ত হয়ে কাজ করবে। যেখানে মোট ২৪টি টিম থাকবে। ৮টি জোনের অধীনে ২৪টি টিম থাকবে। প্রত্যেকটি টিম অথোরাইজড অফিসার, সহকারী অথোরাইজড অফিসার, প্রধান ইমারত পরিদর্শক, ইমারত পরিদর্শক এর সমন্বয়ে গঠিত হয়েছে।

আটটি জোন হলো-

জোন-১ (আশুলিয়া, ধামসোনা): পরিচালক, মো: আবদুল মতিন, ০১৭১০২২৮৩৬৯, অথরাইজড অফিসার, সরদার মুহাম্ম্মদ মাহবুবুর রহমান, ০১৭৩০০৫৫৫২৭।

জোন-২ (উত্তরা, টঙ্গী, গাজীপুর): অথরাইজড অফিসার, মোঃ আশরাফুল ইসলাম, ০১৭৩০০১৩৯২২।

জোন-৩ (সাভার, মিরপুর): পরিচালক, মু. খায়রুজ্জামান, ০১৭১৬৪২৯২৮৫, অথরাইজড অফিসার, মোঃ মোবারক হোসেন, ০১৭৭৭৭৭৫৫১০।

জোন-৪ (গুলশান, বনানী, মহাখালী, পূর্বাচল): পরিচালক, মোহাম্মদ মামুন মিয়া, ০১৭৮১৪৪৭৭৭৮, অথরাইজড অফিসার, সেগুফতা শারমীন, ০১৭৩০০১৩৯২৮।

জোন-৫ (ধানমন্ডি, লালবাগ): পরিচালক, মোঃ শাহ আলম চৌধুরী, ০১৭৩০০১৩৯৪২, অথরাইজড অফিসার, মোঃ নুরুজ্জামান জাহির, ০১৭৩০০১৩৯২৯।

জোন-৬ (মতিঝিল, ভুলতা): খন্দকার অলিউর রহমান, ০১৭৩০০১৩৯০৭, অথরাইজড অফিসার, মোঃ নুরুজ্জামান জাহির, ০১৭৩০০১৩৯২৯।

জোন-৭ (কেরানীগঞ্জ, জুরাইন, সূত্রাপুর, ওয়ারী): পরিচালক, আনন্দ কুমার বিশ্বাস, ০১৭৭০৪৩১৪১৫, অথরাইজড অফিসার, নূর আলম, ০১৭৩০০৩৪০১৫।

জোন-৮ (ডেমরা, নারায়ণগঞ্জ, সোনারগাঁও): অথরাইজড অফিসার, মোঃ মাকিদ এহসান, ০১৯১১২৫২৯৪৩।

প্রসঙ্গত, গত বৃহস্পতিবার রাজধানীর বনানীর এফআর টাওয়ারে এক ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। এতে ২৫ জন নিহত হয় এবং শতাধিক মানুষ আহত হয়। এ ঘটনায় এখনো প্রায় অর্ধশত মানুষ রাজধানীর বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

এ ঘটনার দুদিন পেরোতেই গুলশান-১ এ ঢাকা উত্তর সিটি (ডিএনসিসি) মার্কেটে এক ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। সেখানে তেমন কেউ হতাহত না হলেও প্রায় ২৫০টি দোকান ক্ষতিগ্রস্থ হয়।

sheikh mujib 2020