advertisement
আপনি দেখছেন

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক আইনমন্ত্রী ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের বিরুদ্ধে করা দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) মামলার কার্যক্রম চলবে। আজ সোমবার শুনানি শেষে বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও এসএম কুদ্দুস জামানের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন। এর আগে অবৈধভাবে সম্পদ অর্জন ও তার তথ্য গোপন করার অভিযোগে দায়ের হওয়া এ মামলা স্থগিত চেয়ে করা তার আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন হাইকোর্ট।

barrister moudud ahmad 1

এ বিষয়ে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবীরা বলছেন, এই আদেশের ফলে বিএনপি নেতা মওদুদের দুর্নীতির মামলার কার্যক্রম নিম্ন আদালতে চলতে আর কোনো বাধা নেই। তবে তাৎক্ষণিকভাবে কোনো মন্তব্য করেননি আসামি পক্ষের আইনজীবীরা।

এদিন আদালতে নিজের মামলার শুনানি করেন ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ। এতে তাকে সহযোগিতা করেন ব্যারিস্টার আবদুল্লাহ আল মাহমুদ মাসুদ। অন্যদিকে দুদকের পক্ষে শুনানি করেন খুরশীদ আলম খান।

খুরশীদ আলম খান জানান, মামলাটি ঢাকার ৬ নম্বর বিশেষ জজ আদালতে চলছে। এখন পর্যন্ত বেশ কয়েকজনের সাক্ষ্যও নেয়া হয়েছে। এর মধ্যেই গত ৪ মার্চ বিচারিক আদালতে এ মামলার কার্যক্রম স্থগিত চেয়ে আবেদন করেন মওদুদ আহমদ। তা নাকচ হয়ে গেলে হাইকোর্টে যান তিনি। এখন সেটিও খারিজ হয়ে গেছে। ফলে মামলাটির কার্যক্রম চলমান থাকছে।

উল্লেখ্য, মওদুদ আহমদের বিরুদ্ধে জ্ঞাত আয়বহির্ভূত ৭ কোটি ৩৮ লাখ ৪৮ হাজার ২৮৭ টাকার সম্পদ অর্জন এবং ৪ কোটি ৪০ লাখ ৩৭ হাজার ৩৭৫ টাকার সম্পদের তথ্য গোপন করার অভিযোগে ২০০৭ সালের ১৬ সেপ্টেম্বর ঢাকার গুলশান থানায় মামলা করে দুদক। এ মামলায় গত বছরের ২১ জুন তার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়।