advertisement
আপনি দেখছেন

হ্যাকের মাধ্যমে রিজার্ভ থেকে ৮০০ কোটি টাকা চুরি হওয়ার পর আবারও বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান কার্যালয় ও শাখা অফিসের সকল পিসিতে ভারতীয় নাগরিক সাইবার বিশেষজ্ঞ রাকেশ আস্তানার সফটওয়্যার ইনস্টল দেয়া হচ্ছে। টাকা চুরি হওয়ার আগেও বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান কার্যালয় ও শাখা অফিসের সকল পিসিতে রাকেশ আস্তানার সফটওয়্যার ইনস্টল দেয়া ছিল।

rakesh asthana

টাকা চুরি হওয়ার প্রেক্ষিতে নিরাপত্তা বাড়াতেই এবার নতুন সফটওয়্যার ইনস্টল দেয়া হচ্ছে। তবে নিরাপত্তার জন্য নতুন এ সফটওয়্যারটিও রাকেশ আস্তানা সরবরাহ করবেন।

বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ড. আতিউর রহমান স্বাক্ষরিত এক অফিস আদেশে রাকেশ আস্তানার সফটওয়্যার ইনস্টল দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। গত ৭ মার্চ অফিস আদেশে তিনি স্বাক্ষর করেছেন।

স্বাক্ষরিত ওই অফিস আদেশে বলা হয়েছে, ‘রাকেশ আস্তানার মৌখিক পরামর্শে বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান কার্যালয়ের সকল, বিভাগ,ইউনিটে ও সার্ভারসমূহে তার সরবরাহকৃত সফটওয়্যার (সিকিউরিটি প্যাচ) ইনষ্টল করা হোক।’

এদিকে রাকেশ আস্তানার সরবরাহকৃত সফটওয়্যার ইনস্টল করা হচ্ছে বলে বাংলাদেশ ব্যাংকের বেশ কয়েকজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এই কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, এর মাধ্যমে নিরাপত্তার পরিবর্তে দেশের আর্থিক খাত নতুন করে নিরাপত্তা ঝুঁকিতে পড়তে পারে।

একজন কর্মকর্তা বলেন, কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সব পিসি ও সার্ভারে ভিনদেশী একজন নাগরিকের সফটওয়্যার ইনস্টল করে সকল নিরাপত্তা তাঁর হাতে তুলে দেওয়া হচ্ছে। এটা দেশের আর্থিক খাতের নিরাপত্তার জন্য হুমকিস্বরূপ।

এর আগে বাংলাদেশ ব্যাংকের কেন্দ্রীয় সার্ভারের পাসওয়ার্ড, সুইপ কোড ও অন্যান্য তথ্য চুরি করে এগুলোর মাধ্যমে নিউইয়র্কের ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংকে শ্রীলংকা ও ফিলিপাইনে টাকা স্থানান্তরের ৩০টি আদেশ পাঠানো হয়। যার মাধ্যমে দেশের প্রায় ৮০০ কোটি টাকা বাইরে চলে যায়।

 

আপনি আরও পড়তে পারেন

সরকারি প্রযুক্তি বিভাগে ভারতীয় উপদেষ্টা

বাংলাদেশ ব্যাংকের ১০ কোটি ডলার উধাও!

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের রিজার্ভ হ্যাক, অর্থমন্ত্রী বললেন 'অস্বস্তিকর'

sheikh mujib 2020