advertisement
আপনি দেখছেন

ঢাকা সদরঘাট থেকে যাত্রী নিয়ে ছেড়ে আসা একটি লঞ্চ রবিবার সকালে পটুয়াখালী টার্মিনালে পৌঁছালে আন্দোলনরত নৌপরিবহন শ্রমিকদের হামলায় তিন কর্মী আহত হয়েছেন। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, নৌ শ্রমিকদের অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘট না মেনে রাসেল-৪ নামের লঞ্চটি রবিবার ভোর সাড়ে ৬টার দিকে পটুয়াখালী টার্মিনালে পৌঁছালে আন্দোলনরত পরিবহন শ্রমিকদের হামলায় ওই লঞ্চের লস্কর জাহাঙ্গীরসহ তিনজন আহত হন। পরে আহতদের পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

launch movement startedসদরঘাট, ফাইল ছবি

পটুয়াখালী সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুস্তাফিজুর রহমান বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

সরকারের সাথে ফলপ্রসু আলোচনার পরে শনিবার রাতে সারাদেশে চলমান নৌ ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নেয় নৌযান শ্রমিক ফেডারেশন। নৌযান শ্রমিকরা সরকারকে নৌ পরিবহনের ভাড়া বাড়ানোসহ তাদের ১১ দফা দাবি মেনে নেয়ার কথা জানিয়েছেন। পরে সরকারের আশ্বাস পেয়ে শনিবার রাত ১১টার পর ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নেন শ্রমিক নেতারা।

নৌযান শ্রমিকদের ১১ ঘণ্টা ব্যাপী ধর্মঘটের কারণে হাজার হাজার যাত্রী বিপাকে পড়েন। আন্দোলনের সময় ঢাকার সদরঘাট, চাঁদপুর, বরিশাল, ভোলা, পটুয়াখালী, পিরোজপুর, বান্দারিয়া ও ঝালকাঠিসহ দেশের ৩৩টি রুটে যান চলাচল বন্ধ ছিল। এ সময় চট্টগ্রাম, মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরে থেকে লাইটারেজ জাহাজ চলাচলও বন্ধ ছিল। ইউএনবি।