advertisement
আপনি দেখছেন

চট্টগ্রামে রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের আগমন উপলক্ষে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) ছাত্রলীগের একাংশের ডাকা অনির্দিষ্টকালের অবরোধ কর্মসূচি তিন দিনের জন্য শিথিল করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন আন্দোলনকারীরা। সোমবার দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চবি শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি রেজাউল হক রুবেল।

cu bslচট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া

তিনি বলেন, ‘রাষ্ট্রপতির চট্টগ্রাম আগমন উপলক্ষে আমাদের অনির্দিষ্টকালের অবরোধ শিথিল করা হয়েছে। আমরা প্রশাসনকে তিন দিনের সময় দিয়েছি। অন্যথায় কঠোর আন্দোলনে যাব। তবে অবরোধ শিথিল হলেও শান্তিপূর্ণ আন্দোলন চলবে।’

ক্যাম্পাসে এবং হলগুলোতে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে গত কয়েকদিন ধরে ছাত্রলীগের বিবাদমান দুই গ্রুপ সিএফসি ও ভিএক্স এর মধ্যে দফায় দফায় সংঘর্ষ চলে আসছে। এরইমধ্যে, শনিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের ৬টি হলে তল্লাশী করে বিপুল পরিমাণ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করেছে পুলিশ।

রোববার সন্ধ্যায় সিএফসি গ্রুপের নেতা আব্দুল্লাহ আল নাহিয়ান রাফি ও সুমন নাছিরকে কোপানোর খবর ক্যাম্পাসে ছড়িয়ে পড়লে দু’গ্রুপের মধ্যে আবারো সংঘর্ষ শুরু হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে এ সময় পুলিশ দুই রাউন্ড টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে।

এর পরিপ্রেক্ষিতে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে দুই নেতার ওপর হামলাকারীদের গ্রেপ্তার না করায় সোমবার সকাল থেকে অনির্দিষ্টকালের অবরোধ পালন করে চবি ছাত্রলীগের সভাপতি রেজাউল হক রুবেলের অনুসারী গ্রুপ সিএফসি।

এদিকে অবরোধের প্রথম দিনে ক্যাম্পাস থেকে নগরীর উদ্দেশ্যে কোনো শিক্ষক বাস ছেড়ে যায়নি। তবে, শাটল ট্রেন চললেও তাতে শিক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল খুবই কম।

বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, অবরোধের কারণে বেশ কয়েকটি বিভাগের পূর্ব ঘোষিত পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। ইউএনবি।