advertisement
আপনি দেখছেন

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‘দীর্ঘ নয় মাসের রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের পর একটি স্বাধীন ভূখণ্ড পেয়েছিলাম। অথচ স্বাধীনতার ৪৮ বছর পরও দেশ এখনো গণতন্ত্রবিহীন।’ সোমবার মহান বিজয় দিবসে সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

mirza fakhrul december 2019গণমাধ্যমে কথা বলছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, মহান মুক্তিযুদ্ধের মূল চেতনা ছিল গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র ও সমাজ ব্যবস্থা কায়েম করা। অথচ আজ এদেশের মানুষের কোনো অধিকার নেই। তাদের মৌলিক অধিকারগুলো হরণ করা হয়েছে। সকল গণতান্ত্রিক অধিকার কেড়ে নেয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের স্বাধীনতার ঘোষণার মধ্য দিয়ে মুক্তিযুদ্ধ শুরু হয়। তার সহধর্মিণী বেগম খালেদা জিয়াকে সেসময় পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীরা বন্দি করে নির্যাতন করে। সবচেয়ে দুঃখজনক বিষয় হচ্ছে, আজ তাকে মিথ্যা মামলায় কারাগারে আটক করে রাখা হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া দীর্ঘ ৯ বছর স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনে গণতন্ত্রের জন্য সংগ্রাম করেছিলেন। তিনি জনগণের ভোটে তিনবার প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হয়েছেন। দুইবার বিরোধী দলীয় নেত্রী ছিলেন।

এ সময় বেগম জিয়াকে মুক্ত করার শপথ নিয়ে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘যে চেতনার ভিত্তিতে আমরা মুক্তিযুদ্ধ করে দেশকে স্বাধীন করেছিলাম, সেই চেতনাকে সামনে নিয়ে সমস্ত জনগণকে ঐক্যবদ্ধ করে গণতন্ত্রকে মুক্ত করবো, দেশনেত্রীকে মুক্ত করবো।’

শ্রদ্ধা নিবেদনের সময় আরো উপস্থিত ছিলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. মঈন খান, যুগ্ম মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন, ঢাকা জেলা বিএনপির সভাপতি ডা. দেওয়া সালাউদ্দিন বাবু, যুবদলের সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকুসহ প্রমুখ নেতাকর্মীরা।