advertisement
আপনি দেখছেন

দেশে করোনা ছড়িয়ে পড়লেও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের মতো এখনো কোনো পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়নি বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। আজ সোমবার সচিবালয়ে করোনাভাইরাসের পরিস্থিতি নিয়ে প্রেস ব্রিফিংয়ে গণমাধ্যমকে তিনি এ কথা জানান।

health minister jahid malek

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, যারা করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন তাদের আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। নতুন কেউ আক্রান্ত হলে তাদের জন্যও পর্যাপ্ত ব্যবস্থা আছে। তবে এখনো কঠিন কোনো পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়নি। তাই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করার আপাতত কোনো দরকার নেই। পরিস্থিতি বিবেচনায় পরবর্তীতে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

উদাহরণ দিয়ে তিনি বলেন, ইরানে মসজিদ থেকে করোনা ছড়িয়েছে, আর দক্ষিণ কোরিয়ায় চার্চ থেকে। কারণ সেখানে অসংখ্য বহিরাগত লোকজন আসে। কিন্তু শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বহিরাগত লোকজন তেমন আসে না। তাই সেখান থেকে ভাইরাসটি ছড়ানোর কোনো সম্ভাবনা নেই।

প্রবাসীদের দেশে না আসার অনুরোধ জানিয়ে তিনি বলেন, আপাতত জরুরি অবস্থা ছাড়া কারো দেশে আসার প্রয়োজন নেই। যারা ইতোমধ্যে দেশে চলে এসেছেন তাদের নিজ বাড়িতে কিংবা যেখানেই অবস্থান করছেন সেখানে ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনে থাকা বাধ্যতামূলক।

মন্ত্রী বলেন, করোনাভাইরাসটি তেমন মারাত্মক নয়, তবে ছোঁয়াচে। তাই যতটা সম্ভব গণজমায়েত এড়িয়ে চলতে হবে। আর নিয়মিত মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করতে হবে।

এদিকে, করোনা সংক্রমণ রোধে আসন্ন মুজিববর্ষের মূল অনুষ্ঠান বাতিল করা হয়েছে। এ ছাড়া জনসমাবেশসহ সব ধরনের গণজমায়েত সংশ্লিষ্ট অনুষ্ঠান আপাতত স্থগিত রাখার কথা বলা হয়েছে সংশ্লিষ্টদের পক্ষ থেকে।